সারে ভেজাল মেশানো হয় কেন?

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:১৬ পিএম, ১৭ এপ্রিল ২০১৯

বেশি ফসলের আশায় উচ্চ ফলনশীল ও হাইব্রিড জাতের চাষ বেড়েছে। এর জন্য বিভিন্ন রাসায়নিক সার ব্যবহার করা হয়। তবে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী সারে ভেজাল মিশিয়ে নকল সার বা ভেজাল সার তৈরি করছেন। কৃষকরা তাই আসল সার ও ভেজাল সারের পার্থক্য বুঝতে পারেন না। আসুন সারে ভেজাল মেশানোর কারণ সম্পর্কে জেনে নেই-

ভেজাল সার: ভেজাল সার বলতে বোঝায়, কোন সারের মধ্যে নির্দিষ্ট পরিমাণ পুষ্টি উপাদান না থাকা। সারের মধ্যে সারের মতো দেখতে কোন দ্রব্য বা অন্য কোন দ্রব্যকে সার হিসেবে উৎপাদন, বিপণন ও বিক্রয়ের উদ্দেশে দোকান বা গুদাম ঘরে রাখা।

যে সারে ভেজাল: মূলত ইউরিয়া, টিএসপি, ডিএপি, এমওপি, জিপসাম, জিংক বা দস্তা, মিশ্র সার, এসওপি এবং বোরন সারে ভেজাল মেশানো হয়।

যেভাবে হয়: ইউরিয়া সারে কাঁচের গুড়া অথবা লবণ ভেজাল হিসেবে দেওয়া হয়। ভেজাল টিএসপি সার পানির সাথে মেশালে অল্প কিছুক্ষণের মধ্যেই গলে যায় বা পানির সাথে মিশে যায়। পটাশ সারের সাথে ইটের গুড়া ভেজাল হিসেবে মিশিয়ে দেওয়া হয়। এছাড়া বিভিন্ন সারের সাথে বালু, মিহি সাদা পাথর ও চুনজাতীয় পদার্থ মেশানো হয়।

শনাক্তকরণ: মাঠ পর্যায়ে কৃষকরা সার ব্যবহারের আগে সহজেই পরীক্ষা করে নিতে পারেন। ভেজাল শনাক্তকরণের সহজ উপায় জানতে পড়ুন- কীভাবে চিনবেন ভেজাল সার

সীমাবদ্ধতা: এ পরীক্ষার মাধ্যমে সারের পুষ্টি উপাদান আদৌ আছে কি না তার ধারণা পাওয়া যাবে। কিন্তু পুষ্টিমানের পরিমাণ বোঝা যাবে না। সারের পুষ্টিমানের সঠিক পরিমাণ জানতে সরকার নির্দিষ্ট গবেষণাগারে পাঠাতে হবে।

এসইউ/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :