আন্তর্জাতিক

ইরান খুব, খুব বিপজ্জনক হয়ে উঠছে : নেতানিয়াহু

ইরানের ইউরেনিয়াম মজুদের ঘোষণাকে চরম বিপজ্জনক পদক্ষেপ বলে মন্তব্য করেছেন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু। তেহরানের এই ঘোষণার জেরে দেশটির ওপর কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপে ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

২০১৫ সালে ইরানের সঙ্গে ছয় বিশ্বশক্তির স্বাক্ষরিত চুক্তি থেকে যুক্তরাষ্ট্র বেরিয়ে গিয়ে তেহরানের ওপর সম্প্রতি বেশ কিছু নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে ওয়াশিংটন। যুক্তরাষ্ট্রের এই নিষেধাজ্ঞা আরোপের পর সেই চুক্তির শর্ত উপক্ষো করে ইরান যে কোনো মাত্রার এবং যে কোনো পরিমাণে ইউরেনিয়াম মজুদ করবে বলে ঘোষণা দিয়েছে।

তেহরানের এই ঘোষণাকে নেতানিয়াহু চরম বিপজ্জনক বলে মন্তব্য করে এর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। এক সংবাদ সম্মেলনে ইরানের জ্যেষ্ঠ এক কর্মকর্তা বলেছেন, পারমাণবিক অস্ত্রধারী চায় না তেহরান। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার কবল থেকে ইরানের সুরক্ষা নিশ্চিত না করলে প্রত্যেক ৬০ দিন পরপর পারমাণবিক চুক্তির শর্ত উপেক্ষা করবে তেহরান।

আরও পড়ুন >> ইরানের পর কাঁপল কুয়েত

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু দেশটির মন্ত্রিসভার এক বৈঠকে ইরানের ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের ঘোষণার ব্যাপারে বলেন, এটা খুব, খুবই বিপজ্জনক পদক্ষেপ। ইউরেনিয়াম মজুদ না করতে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে যে প্রতিশ্রুতি করেছিল ইরান, তা লঙ্ঘন করেছে।

‘আমার বন্ধু ফ্রান্স, ব্রিটেন এবং জার্মানির রাষ্ট্রপ্রধানদের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি যে, আপনারা এই চুক্তি স্বাক্ষর করেছেন এবং বলেছেন, শিগগিরই ব্যবস্থা নেয়া হবে, কঠিন নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হবে। আর এটা নিরাপত্তা পরিষদের প্রস্তাব ছিল। আপনারা এখন কোথায়?’

যদি ইউরোপীয় ইউনিয়নের এই তিন মিত্র বিশ্বাস করে যে, ইরান চুক্তি লঙ্ঘন করেছে। তাহলে তারা নিরাপত্তা পরিষদে একটি প্রস্তাবনা এনে বিতর্কের আয়োজন করতে পারে। এই প্রস্তাবনা শেষে তেহরানের বিরুদ্ধে জাতিসংঘ পুনরায় নিষেধাজ্ঞা আরোপ করতে পারে।

আরও পড়ুন >> শারীরিক সম্পর্কে রাজি না হওয়ায় স্ত্রীকে হত্যা, যৌনাঙ্গ কর্তন

তিনি বলেন, নিরাপত্তা পরিষদের অপর দুই দেশ রাশিয়া এবং চীন হচ্ছে ইরানের মিত্র। তারা এ ধরনের পদক্ষেপ নেবে না।

নেতানিয়াহু বলেন, একটি কারণে, শুধুমাত্র একটি ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করা হয়; আর সেটা হচ্ছে অ্যাটিমিক বোমা তৈরি জন্য। ইসরায়েলি এই প্রধানমন্ত্রী ২০১৫ সালে ছয় বিশ্ব শক্তির সঙ্গে ইরানের স্বাক্ষরিত পারমাণবিক চুক্তির ঘোর বিরোধী।

সূত্র : রয়টার্স।

এসআইএস/জেআইএম