আন্তর্জাতিক

জিনপিংয়ের সমালোচনা করায় চীনা অধ্যাপক গ্রেফতার

চীনা কর্তৃপক্ষ দেশটির এক আইনের অধ্যাপককে গ্রেফতার করেছে। ওই অধ্যাপক করোনাভাইরাস মোকাবিলা নিয়ে দেশটির প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের সমালোচনা করে একটি প্রবন্ধ লিখেছিলেন। যেখানে তিনি জিনপিংকে একজন স্বৈরাচারী শাসকের মতো দেশ পরিচালচনার জন্য অভিযুক্ত করেন।

জু ঝাংগ্রুন নামের ওই অধ্যাপকের বন্ধু ও সহকর্মীদের বরাতে এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়ে বলা হচ্ছে, চীনে দেশটির শাসকদলের কর্মকাণ্ড নিয়ে অল্প মানুষকে সমালোচনা করতে দেখা যায়। জু তাদের মধ্যে একজন। বেইজিংয়ের উপকণ্টের বাসা থেকে সোমবার সকালে তাকে ২০ জন পুলিশ সদস্য গ্রেফতার করে।

তার অধ্যাপক বন্ধুরা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেছেন, সোমবার সকালে একদল পুলিশ তার বাসায় প্রবেশ করে তার ঘরের নানা কাগজপত্র খোঁজাখুঁজি করে এবং তার কম্পিউটারটিও জব্দ করে। এরপর সেখান থেকে তাকে গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়া হয়। তবে তার বিরুদ্ধে কি অভিযোগ তা জানায়নি পুলিশ।

জু ঝাংগ্রুনের প্রকাশিত ওই প্রবন্ধের শিরোনাম ছিল, ‘ভাইরাল সতর্কতা- যখন উন্মোত্ততা ভয়কেও ছাড়িয়ে যায়’। গত ফেব্রুয়ারিতে নিবন্ধটি প্রকাশিত হয়। সেখানে চীনে করোনাভাইরাসের বিস্তার নিয়ে জিনপিং সরকারের প্রতারণা এবং সেন্সরশিপের সংস্কৃতি নিয়ে তিনি প্রশ্ন তুলেছেন।

বিদশের একটি ওয়েবসাইটে নিবন্ধটি প্রকাশিত হয়। তাতে জু ঝাংগ্রুন লিখেছেন, ‘এই সমস্ত মিথ্যাচারের কারণ অক্ষের বিষয়টি সামনে তুলে ধরেছে যা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং ও তার চারপাশে থাকা চক্রান্তকারীদের নিয়ে গঠিত।’

তিনি লিখেছেন, ‘এটা ভাইরাসটি সম্পর্কিত সঠিক তথ্য প্রকাশের ওপর কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপের মধ্য দিয়েই শুরু হয়েছিল, যা সরকারের প্রতিটি স্তরের প্রতারণার বিষয়টিকেই প্রশ্রয় দেয়।’ সোমবার আলজাজিরার পক্ষ থেকে পুলিশ ও জননিরাপত্তা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তারা এর কোনো উত্তর দেয়নি।

এসএ