দেশজুড়ে

কক্ষে মিলল শিশুর ঝুলন্ত মরদেহ, কারণ ‘প্রেমঘটিত’ নাকি ‘অন্য কিছু’

সাভারের আশুলিয়ায় ভাড়া বাসার নিজ কক্ষ থেকে সুরাইয়া জামান স্বর্ণা (১৩) নামের এক শিশু শিক্ষার্থীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মরদেহের পাশ থেকে তার হাতে লেখা একটি চিরকুট উদ্ধার করা হয়েছে।

Advertisement

‘আমার মৃত্যুর জন্য দায়ী আরিয়ান হাসান সুমন, আমি আত্মহত্যা করলাম, বাই’ লেখা নোটটি ওই শিক্ষার্থীর বলে জানিয়েছে তার পরিবার।

বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) বিকেলে পল্লীবিদ্যুৎ এলাকার অফিসার্স সোসাইটি এলাকার মাহফুজা বেগমের মালিকানাধীন বাড়ির কক্ষ থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

সুরাইয়া পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া থানার ছোটহারজি গ্রামের রাহাত তালুকদার আসাদের মেয়ে। সে তার পোশাকশ্রমিক বাবা ও গৃহিণী মায়ের সঙ্গে পল্লীবিদ্যুৎ এলাকার অফিসার্স সোসাইটি এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকত। সে স্থানীয় ইস্ট পয়েন্ট ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী ছিল।

Advertisement

ওই শিক্ষার্থীর বাবা রাহাত তালুকদার আসাদ জানান, বিকেলে আমি গার্মেন্টসে ও আমার স্ত্রী বাসা থেকে দূরে একটি এনজিওতে যান। তখন আমার স্বজনের ছোট এক শিশুকে রুমে ঘুম পাড়িয়ে রেখেছিল আমার মেয়ে। এসব কথা ফোন করে মেয়ে আমাকে জানায়। এর কিছুক্ষণ পর পাশের বাসার একজন আমাকে ফোন করে দ্রুত বাসায় আসতে বলেন। পরে বাসায় এসে মেয়েকে বিছানার ওপর মৃত অবস্থায় পাই। মরদেহের পাশেই চিরকুটটি পড়ে ছিল।

আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মহির উদ্দিন জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।

তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে প্রেমঘটিত ব্যাপারে ওই শিক্ষার্থী আত্মহত্যা করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে তিনি জানান।

আল-মামুন/এসআর

Advertisement