তথ্যপ্রযুক্তি

যুক্তরাষ্ট্রে টানা ৪ মাস ধরে বিক্রির শীর্ষে আইফোন ১১

বিক্রির দিক দিয়ে গত ৪ মাস ধরে যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে শীর্ষ অবস্থান ধরে রেখেছে অ্যাপলের আইফোন ১১। উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে অ্যাপলের সবচেয়ে কমদামি স্মার্টফোন ছিল এটি। যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে এর দাম ধরা হয়েছে ৬৯৯ মার্কিন ডলার। এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানিয়েছে স্মার্টফোন বিষয়ক গবেষণা প্রতিষ্ঠান কাউন্টার পয়েন্ট রিসার্চ।

Advertisement

কাউন্টার পয়েন্টের সিনিয়র অ্যানালিস্ট হানিশ ভাটিয়া জানান, বিক্রির দিক থেকে আইফোন ১১ এর পরেই অবস্থান আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স এবং আইফোন এসই-এর।

প্রসঙ্গত, প্রত্যাশিত সময়ের চেয়ে পরে আইফোন ১২ সিরিজ বাজারে আসার পরেও স্মার্টফোন বাজারে নিজেদের শক্ত অবস্থান ধরে রাখতে পেরেছ অ্যাপল। এর আগে স্মার্টফোনের বাজারে মোট আইফোনের শেয়ার ৩৯ শতাংশে নেমে এলেও আইফোন ১১ সিরিজ এবং এসই ২০২০ সিরিজের মাধ্যমে বিক্রির শীর্ষেই রয়েছে অ্যাপল।

বাংলাদেশের বিভিন্ন ই-কমার্স ওয়েবসাইটে ঘুরে দেখা গেছে, আইফোন ১১ বিক্রি হচ্ছে ৮৮ হাজার টাকায়। আইফোন ১১ প্রো ৬৪ জিবি ভার্সনের দাম ১ লাখ ১৫ হাজার টাকা। আর আইফোন ১১ প্রো ম্যাক্স বিক্রি হচ্ছে ১ লাখ ৩০ হাজার থেকে ১ লাখ ৪৫ হাজার টাকার মধ্যে।

Advertisement

এদিকে, যুক্তরাষ্ট্রে অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনের বাজারে একলাফে বহুদূর এগিয়েছে স্যামসাং। গ্যালাক্সি নোট ২০-সহ এই সিরিজ অন্যান্য স্মার্টফোনের তুলনায় বহুগুণ বেশি বিক্রি হয়েছে।

এর কারণ হলো, চলতি বছরের সেপ্টেম্বরের শেষদিকে বাজারে আসা গ্যালাক্সি এস২০ ফ্যান এডিশনে তুলনামূলক কম দামে (৬৯৯ ডলার) বেশি ব্যাটারি এবং ১২ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের অ্যামোলেড ডিসপ্লে ছিল।

সে তুলনায় স্মার্টফোনের বাজারে এলজির অবস্থান প্রায় অপরিবর্তিত। বছরের শেষ তৃতীয়াংশে এসে এলজি ভেলভেট ও কে৯২ ৫জি ফোন দুটির মাধ্যমে ভালো অবস্থানে রয়েছে তারা।

আর বছরের শেষদিকে এসে যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে স্মার্টফোনের বিক্রি বেড়েছে ৩১ শতাংশ। যদিও তা গত বছরের এই সময়ের তুলনায় ৬ শতাংশ কম।

Advertisement

এসএস/এমএস