দেশজুড়ে

দুই শিশুকে বলাৎকার, দুই মাদরাসা শিক্ষক গ্রেফতার

টাঙ্গাইলের ঘাটাইল পৌর এলাকার পশ্চিমপাড়া শ্যামলী (গরুর হাট) এলাকার আল এহসান নুরানি ও হেফজ মাদরাসায় দুই শিশু শিক্ষার্থীকে বলাৎকারের অভিযোগে মাদরাসার দুই শিক্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

Advertisement

বলাৎকারের শিকার দুই শিক্ষার্থী ঘাটাইলের পশ্চিমপাড়ার আল এহসান নুরানি মাদরাসার হেফজখানার ছাত্র।

এ ঘটনায় গ্রেফতার মাদরাসার শিক্ষকরা হলেন- গোপালপুর উপজেলার শরিফপুর গ্রামের হেকম আলীর ছেলে রমিজুল (২২) ও ভূঞাপুর উপজেলার নিকরাইল গ্রামের মৃত তারা মিয়ার ছেলে খায়রুল (২২)। আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির পর তাদের কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার সকালে ঘাটাইল পৌর এলাকার পশ্চিমপাড়া মাদরাসার হেফজখানায় দুই শিক্ষার্থীকে মাদরাসার দুই শিক্ষক রমিজুল ও খায়রুল বলাৎকার করেন। বিষয়টি দুই শিশু বাবা-মাকে জানায়। পরে বাবা-মা পুলিশকে জানান। অভিযোগ পেয়ে মাদরাসায় অভিযান চালিয়ে দুই শিক্ষককে গ্রেফতার করে পুলিশ।

Advertisement

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী এক শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে ঘাটাইল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন।

বলাৎকারের শিকার এক ছাত্রের অভিভাবক জানান, ঘটনার শিকার আমার ছেলে ভয়ে মাদরাসা থেকে পালিয়ে নানির বাসায় আশ্রয় নেয়। খবর পেয়ে আমি ও আমার স্ত্রী সেখানে যাই। কারণ জানতে চাইলে ছেলে বলে আমি আর মাদরাসায় যাব না। হুজুর আমার সঙ্গে খারাপ কাজ করেছে। আমাকে মাদরাসায় পাঠালে ছাদ থেকে লাফ দিয়ে মরে যাব।

ঘাটাইল থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মতিউর রহমান বলেন, বলাৎকারের শিকার শিশুরা নির্যাতনের বিষয়টি পরিবারকে জানালে পরিবার থানায় অভিযোগ দেয়। পরে মাদরাসা থেকে অভিযুক্ত শিক্ষক রমিজুল ও খায়রুলকে গ্রেফতার করা হয়। এ বিষয়ে ঘাটাইল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা হয়েছে। আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির পর তাদের কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আরিফ উর রহমান টগর/এএম/এমকেএইচ

Advertisement