‘কিছু বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় পথে আনা সম্ভব হয়নি’

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:৪১ পিএম, ০৯ জানুয়ারি ২০১৮ | আপডেট: ০৫:৫৬ পিএম, ০৯ জানুয়ারি ২০১৮

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, ‘কিছু বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়কে চাপে রেখেও সঠিক পথে আনা সম্ভব হয়নি। তাদের বিরুদ্ধে আইনি লড়াই ছাড়া আর কোনো পথ নেই। সে প্রক্রিয়ায় আমরা এগিয়ে যাচ্ছি।’

মঙ্গলবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত আহ্ছানউল্লাহ ইউনিভার্সিটি অব সাইন্স অ্যান্ড টেকনোলজির দশম সমাবর্তন অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

নাহিদ বলেন, সবাইকে ব্যবসা ও মুনাফার চিন্তা ত্যাগ করে জনকল্যাণে সেবার মনোভাব ও শিক্ষার জন্য কাজ করতে হবে। নতুন প্রজন্মকে দায়িত্বশীল দেশপ্রেমিক নাগরিক করে গড়তে হবে। নতুবা সেসব প্রতিষ্ঠানকে বেশি দিন চলতে দেয়া হবে না।

নতুন গ্র্যাজুয়েটদের উদ্দেশ্যে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, অনেক মেধা, শ্রম ও প্রচেষ্টার মাধ্যমে আপনারা এ ডিগ্রি অর্জন করেছেন। এ মেধা ও জ্ঞান কম আলোকিত মানুষের মধ্যে ছড়িয়ে দিন।

সমাবর্তন অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবদুল মান্নান বলেন, দেশে উচ্চশিক্ষিত বেকারের সংখ্যা প্রায় ৪৭ শতাংশ। আমাদের শিক্ষাব্যবস্থা কর্মমুখী না হওয়ায় উচ্চ ডিগ্রি পাওয়ার পরও অনেকে বেকার রয়ে যাচ্ছেন। অথচ প্রায় ছয় লাখ বিদেশি কাজ করে বাংলাদেশের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে। তাই উচ্চশিক্ষার প্রতিষ্ঠানগুলোকে কর্মমুখী শিক্ষার প্রতি গুরুত্ব দিতে হবে।

jagonews24

আহ্ছানউল্লাহ ইউনিভার্সিটি অব সাইন্স অ্যান্ড টেকনোলজির সমাবর্তনে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পর্যায়ে মোট ১ হাজার ৪৪০ জনকে ডিগ্রি প্রদান করা হয়েছে। এর মধ্যে স্নাতক পর্যায়ে ১ হাজার ২৬১ জন এবং স্নাতকোত্তরে ১৮৫ জন শিক্ষার্থী রয়েছেন। এদের মধ্যে সেরা ফলাফলের জন্য কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের দুই নারী শিক্ষার্থীকে আহ্সানউল্লাহ পদক প্রদান করা হয়েছে।

সমাবর্তন বক্তব্য দেন আমেরিকার ম্যাসাচুসেটস বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রভোষ্ট ও এক্সিকিউটিভ উপাচার্য ড. মোহাম্মদ এ করিম, বিশ্ববিদ্যালয়ের বোর্ড অব ট্রাস্টিজের চেয়ারম্যান কাজী রফিকুল আলম, উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এম এম শফিউল্লাহ। এছাড়া অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের বোর্ড অব ট্রাস্টিজের সদস্যরা, শিক্ষক-শিক্ষিকা, অভিভাবক প্রমুখ।

এমএইচএম/জেডএ/আরআইপি

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com

আপনার মতামত লিখুন :