চবির দুই শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রলীগ নেতার অনশন

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক চবি
প্রকাশিত: ০৬:৩৭ পিএম, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) দুই শিক্ষক অধ্যাপক ড. রাহমান নাসির উদ্দিন ও সহকারী অধ্যাপক ড. হানিফ মিয়াকে প্রশাসনিক দায়িত্ব দেয়ায় অনশন করেছেন শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য ইফতেখার উদ্দিন আয়াজ।

বুধবার বিকেল ৩টা থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু চত্বরে অনশন শুরু করেন তিনি। কিন্তু বিকেল ৪টার দিকে ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর প্রণব মিত্র চৌধুরীর আহ্বানে অনশন তুলে নেন। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর তার কার্যালয়ে অনশনকারী ছাত্রলীগ নেতার সঙ্গে আলোচনা করেন।

অনশনকারী ইফতেখার উদ্দিন আয়াজের দাবি, ওই দুই শিক্ষক গত বছর কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের পক্ষ নিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে ‘কটূক্তিকারী’ সমাজতত্ত্ব বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মাইদুল ইসলামের পক্ষে মানববন্ধন করেছিলেন।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের ২৩ জুলাই শিক্ষক মাইদুল ইসলামের বিরুদ্ধে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় মামলাও করেছিলেন অনশনকারী এ ছাত্রলীগ নেতা।

অনশনের বিষয়ে আয়াজ জাগো নিউজকে বলেন, ‘সম্প্রতি ড. রাহমান নাসির উদ্দিনকে বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা পরিচালনা ও প্রকাশনা দফতরের পরিচালক এবং ড. হানিফ মিয়াকে সহকারী প্রক্টর পদে নিয়োগ দেন দায়িত্বপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক ড. শিরীণ আখতার। অথচ এই দুই শিক্ষক প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তিকারী মাইদুল ইসলাম ও কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের পক্ষে ক্যাম্পাসে মানববন্ধন করেছিলেন। শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় এদের দুইজনকে প্রশাসনিক দায়িত্ব দিয়েছেন উপাচার্য। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের এমন কর্মকাণ্ড শেখ হাসিনার সঙ্গে প্রতারণার শামিল। ছাত্রলীগের কর্মী হিসেবে আমি এটা কখনোই মেনে নিতে পারি না।’

এক ঘণ্টার মধ্যে অনশন তুলে নেয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, ‘প্রক্টর স্যার এসেছেন। এ বিষয়ে লিখিত অভিযোগ দিতে বলেছেন। তাই আজকের মতো অনশন তুলে নিয়েছি। কাল ফের অনশনে বসবো।’

এদিকে অনশন চলাকালে ঘটনাস্থলে আসেন সহকারী প্রক্টর ড. হানিফ মিয়া। এ সময় তিনি অনশনকারীকে শিক্ষক মাইদুল ইসলামের স্ত্রীর একটি স্ট্যাটাস দেখিয়ে চলে যান। পরে সেখানে ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর প্রণব মিত্র চৌধুরী ও সহকারী প্রক্টর মরিয়ম আক্তার লিজা আসেন।

ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর প্রণব মিত্র চৌধুরী জাগো নিউজকে বলেন, আমরা আলোচনা করে তার দাবির বিষয়ে জেনেছি। আমাদের আহ্বানে সে অনশন তুলে নিয়েছে।

আবদুল্লাহ রাকীব/এমবিআর/পিআর

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]