ছাত্রলীগের রাজনীতি নিষিদ্ধ চায় প্রগতিশীল ছাত্রজোট

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
প্রকাশিত: ০৩:২৯ পিএম, ১২ অক্টোবর ২০১৯

সব ছাত্রসংগঠন নয় ক্যাম্পাসে ক্যাম্পাসে সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালানোর দায়ে ছাত্রলীগের রাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি জানিয়েছেন প্রগতিশীল ছাত্রজোট।

শনিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে প্রগতিশীল ছাত্রজোট আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানান সংগঠনটির সমন্বয়ক আল কাদেরী জয়।

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যার পর বুয়েটে সব ছাত্র সংগঠনের সাংগঠনিক কার্যক্রম নিষিদ্ধের সমালোচনা করে রাজনীতি নিষিদ্ধের সিদ্ধান্তকে ভয়ংকর অগণতান্ত্রিক বলে মন্তব্য করেছে সংগঠনটি।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের সভাপতি আল কাদেরী জয়। তিনি বলেন, আমরা মনে করি এটি একটি ভয়ংকর অগণতান্ত্রিক সিদ্ধান্ত এবং সব ধরনের বিরোধী মত ও তার ভিত্তিতে সংঘটিত শক্তিকে দমনের একটি হাতিয়ার। শিক্ষার্থীদের তাৎক্ষণিক আবেগকে কাজে লাগিয়ে এ ঘটনার মূল উৎস যে অগণতান্ত্রিক চর্চা, এটাকে আড়াল করে আরও শক্তিশালী করার আয়োজন করেছে বুয়েট প্রশাসন।

তিনি আরও বলেন, গত এক দশক ধরে বুয়েটে কোনো ছাত্ররাজনীতি ছিল না। শুধু ছিল রাজনীতির নামে ছাত্রলীগের চাঁদাবাজি-সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড আর নির্যাতন। বিরোধী কোনো ছাত্র সংগঠনই ক্যাম্পাসে কাজ করতে গেলে নির্মমভাবে তাদের দমন করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি মেহেদী হাসান নোবেল, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের সভাপতি মাসুদ রানা, বিপ্লবী ছাত্র-মৈত্রীর সভাপতি ইকবাল কবীর, সাধারণ সম্পাদক দিলীপ রায়, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন প্রিন্স প্রমুখ।

সংবাদ সম্মেলন থেকে ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধের প্রতিবাদে শনিবার বিকেল ৪টায় টিএসসি থেকে পলাশীর মোড় পর্যন্ত বিক্ষোভ মিছিলের ঘোষণা দেয়া হয়।

জেএইচ/জেআইএম

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com