শেকৃবিতে মাদক, জঙ্গিবাদ ও র‌্যাগিং বিরোধী সমাবেশ

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক শেকৃবি
প্রকাশিত: ১১:৫১ পিএম, ০২ নভেম্বর ২০১৯

মাদক, জঙ্গিবাদ ও র‌্যাগিং প্রতিরোধ করে শিক্ষাঙ্গনে সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (শেকৃবি) সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিবার (২ নভেম্বর) বিকেলে শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় অডিটোরিয়ামে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

উপাচার্য প্রফেসর ড. কামাল উদ্দিন আহাম্মদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত পুলিশ মহাপরিদর্শক কৃষিবিদ মীর শহীদুল ইসলাম, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম, ট্রেজারার প্রফেসর ড. মো. আনোয়ারুল হক বেগ, তেজগাঁও বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার বিপ্লব কুমার তালুকদার। অনুষ্ঠানের মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. সেকেন্দার আলী।

southeast

সহকারী অধ্যাপক মো. রুহুল আমিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা পরিচালক প্রফেসর ড. মো. মিজানুর রহমান। এ সময় বিভিন্ন অনুষদের ডিন, পরিচালক, বিভিন্ন বিভাগের চেয়ারম্যান, শিক্ষক, কর্মকর্তা, কর্মচারী ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ কমিশনার শফিকুল ইসলাম বলেন, র‌্যাগিং নিয়ে বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে যে, দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোতে টর্চার কক্ষ রয়েছে, যেখানে শিক্ষার্থীদের নির্যাতন করা হয়। প্রধানমন্ত্রী নির্দেশনা দিয়েছেন, সব হলে অভিযান চালাতে। যার প্রেক্ষিতে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনের সাথে যোগাযোগ করার পর তাদের পরামর্শে এ সমাবেশের আয়োজন করা হয়। আমি শিক্ষার্থীদের প্রতি আহ্বান জানাই, তোমরা নিজেরা মাদক সেবন করবে না। যারা সেবন করবে তাদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলবে। এক্ষেত্রে আমরা সর্বাত্মক সহযোগিতা করব।

বাংলাদেশ পুলিশ স্পেশাল ব্রাঞ্চের অতিরিক্ত পুলিশ মহাপরিদর্শক শহীদুল ইসলাম বলেন, যেখানে যাবেন জনগণের সেবা করবেন।

বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যার বিষয়ে তিনি বলেন, নিজের ক্যাম্পাসের কিছু সিনিয়র বা জুনিয়রের হাতে একজন মেধাবী ছাত্র নিহত হয়েছে। এতে ২২টি পরিবারের স্বপ্ন ভেঙে যাবে। তাই জোর-জবরদস্তি বা র‍্যাগিং করে নয়, তোমরা এমন আদর্শ গড়ো যাতে তোমাদের চালচলন, আদর্শ দেখে অন্যরা তোমাদের কাছে আসবে।

উপাচার্য প্রফেসর ড. কামাল উদ্দিন আহাম্মদ বলেন, র‌্যাগিং একটি অপসংস্কৃতি। শিক্ষার্থীদের মনন বিকাশে বাধা দেয় এমন অপসংস্কৃতি থেকে সবাইকে বের হয়ে আসতে হবে। সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় র‌্যাগিং মুক্ত ক্যাম্পাস গড়া সম্ভব। র‌্যাগিং মুক্ত ক্যাম্পাস গড়ার দৃঢ় প্রত্যয় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন গ্রহণ করেছে।

মো. রাকিব খান/এমএসএইচ

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - jagofeature@gmail.com