ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বই মেলা শুরু

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:১১ পিএম, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) উদ্যোগে প্রথমবারের মতো সপ্তাহব্যাপী ‘ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বইমেলা’ আজ থেকে শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের হাকিম চত্বরে বেলুন উড়িয়ে বইমেলার উদ্বোধন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, ডাকসুর কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক শিবলী রুবায়েত ইসলাম, ডাকসুর এজিএস সাদ্দাম হোসেন, সাহিত্য সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম শয়ন, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক আসিফ তালুকদার, ক্রীড়া সম্পাদক শাকিল হাসান তানভীর, সদস্য মাহমুদুল হাসান প্রমুখ।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, 'ডাকসুর কাজে আমি মুগ্ধ। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের জন্য এটি খুবই ফলপ্রসূ হবে বলে আমি মনে করি। ডাকসুকে ধন্যবাদ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় বইমেলা আয়োজন করার জন্য। সকলকে আহ্বান জানাই, এসো, পড়ো এবং ইতিহাস জানো।'

বইমেলার গুরুত্ব এখনো অনেক উল্লেখ করে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেন, বিজ্ঞানের উৎকর্ষতার এ যুগে সব ধরনের বই অনলাইনে পড়া গেলেও ছাপা বইয়ের আবেদন কমেনি একটুকুও। এই বই আমাদের সত্যিকারের অনুপ্রেরণা জোগায়। তিনি এ সময় প্রকাশকদের মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক, জনপ্রিয় ও গুরুত্বপূর্ণ বইগুলোর ইংরেজি অনুবাদ ও আরও বেশি সহজলভ্যতার দিকে মনোযোগ দিতে বলেন।

লেখার স্বাধীনতার কথা উল্লেখ করে এজিএস সাদ্দাম হোসেন বলেন, বাংলাদেশের লেখার স্বাধীনতাকে যদি কেউ আঘাত করতে চায়, কোন মৌলবাদী যদি ধর্মের ঠুনকো কারণ দেখিয়ে বাধাগ্রস্ত করতে চায়, তাহলে আমরা তরুণরা তাদের প্রতিহত করব। প্রকাশকদের প্রতি আহ্বান জানাই আপনারা যেকোনো লেখা যেকোনো লেখকের লেখা প্রকাশ করুন। কোনো অন্যায়ের কাছে মাথানত করবেন না।

বইমেলার প্রধান সমন্বয়ক মাজহারুল ইসলাম শয়ন বলেন, আমরা ডাকসু নির্বাচনের সময় ইশতেহারে বলছিলাম একটি বইমেলার আয়োজন করবো। আমরা ইতোমধ্যে বঙ্গবন্ধু বইমেলা আয়োজন করেছি। এবার সপ্তাহব্যাপী বইমেলার আয়োজন করলাম। আশা করি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা এর দ্বারা উপকৃত হবেন।

মেলায় ৮০টির বেশি প্রকাশনী অংশগ্রহণ করে। মেলা আজ থেকে ১৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত প্রতিদিন বেলা ১১টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত চলবে। এতে প্রতি সন্ধ্যায় থাকছে সাহিত্য সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন।

এনএফ/জেআইএম

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - [email protected]