প্রশাসনের হস্তক্ষেপেই হামলা : ডাকসু ভিপি নুর

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:২২ পিএম, ২৩ জানুয়ারি ২০২০

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি (সহ-সভাপতি) নুরুল হক নুর বলেছেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলোতে যে নির্যাতন এবং সন্ত্রাসী কার্যক্রম সংঘটিত হচ্ছে সেখানে প্রশাসনের সরাসরি হস্তক্ষেপ রয়েছে। এসবের প্রমাণ থাকার পরেও বিচার না করার মধ্য দিয়ে তা প্রকাশ পায়।

বৃহস্পতিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলায় বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশনের ৩৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে ছাত্র সমাবেশে তিনি একথা বলেন।

নুর বলেন, ক্ষমতাসীন ছাত্র সংগঠনগুলো অন্যায় করলে টুঁ শব্দ পর্যন্ত করে না এ প্রশাসন। অথচ জহুরুল হক হলের শিক্ষার্থীদের এমন ভয়াবহ নির্যাতনের পর প্রশাসন বলে কিছু হয়নি, সামান্য হইচই হয়েছে। এ হচ্ছে বাংলাদেশের শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপীঠ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চিত্র।

ডাকসু ও হলে নির্যাতন নিয়ে ভিপি নূর বলেন, পরিকল্পিতভাবে ভিন্ন মত দমনের লক্ষ্যে সরকারদলীয় ছাত্র সংগঠন ডাকসু এবং হলে এমন সন্ত্রাসী কার্যক্রম ঘটিয়েছে। আমরা প্রশাসনের কাছে বলতে চাই, অনেক হয়েছে, এবার আপনাদের সন্ত্রাসী কার্যক্রম বন্ধ করুন এবং সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিন। না হলে ছাত্রসমাজ আপনাদের ছাড়বে না।

সাধারণ শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আপনাদের শুধু নিজের কথা ভাবলে চলবে না। নির্যাতনের বিরুদ্ধে, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আন্দোলন করতে হবে। পাবলিকের টাকা দিয়ে আমরা পড়ালেখা করছি তাদের জন্য হলেও আমাদের লড়তে হবে। আজ আমি, কাল আপনিও এ নির্যাতনের শিকার হতে পারেন। সুতরাং তার আগেই প্রতিবাদ করুন।

ছাত্র সমাবেশে আরও উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সমাজবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক সামিরা ইসলাম, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জুনায়েদ সাকি, ছাত্র ফেডারেশনের সাবেক সভাপতি রাহাত আহমেদ, সাবেক সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল আলম, সাবেক সদস্য জাহিদ রায়হান তাহরাত লিওন, সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন, শ্রমিক নেতা বাচ্চু মিয়া প্রমুখ।

এনএফ/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]