বিশ্ববিদ্যালয়ে চাকরি দেয়ার নামে প্রতারণা, গ্রেফতার ৩

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়
প্রকাশিত: ০৭:০০ পিএম, ২৫ জুন ২০২০

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে আউটসোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল নিয়োগের ভুয়া কার্যাদেশ তৈরি করে মালি ও ক্লিনার পদে চাকরির দেয়ার অভিযোগে প্রতারক চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন পার্কের মোড় এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে বলে বিষয়টি নিশ্চিত করেন বেরোবি পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই মুহিব্বুল ইসলাম।

তিনি বলেন, প্রথমে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের করা সাধারণ ডায়েরির ভিত্তিতে আটক করা হলেও বৃহস্পতিবার প্রশাসনের পক্ষ থেকে করা মামলায় তাদের গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- রংপুরের মিঠাপুকুর খরমোদের পাড়ার মৃত মোহাম্মদ আলীর ছেলে ওসমান গণি (৫২), দিনাজপুরের পাবর্তীপুরের বটগাছ গ্রামের মোজাম্মেল হকের ছেলে রিজভী আলম (২৬) ও দিনাজপুর ফুলবাড়ির পশ্চিম গণি পাড়ার মৃত ওসমান গণির ছেলে জাহিদুল ইসলাম (৪৫)।

জানা যায়, বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে আউটসোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল (গার্ডেনার ও ক্লিনার) নিয়োগের লক্ষ্যে গত ৮ মার্চ একটি দরপত্র আহ্বান করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। পরবর্তীতে করোনার উদ্ভূত পরিস্থিতির কারণে গত ২৩ মার্চ উল্লিখিত দরপত্র বিজ্ঞপ্তি স্থগিত করা হয়। স্থগিতকরণের বিষয়টি বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট ও জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত হয়।

আউটসোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল নিয়োগের দরপত্র প্রক্রিয়াটি স্থগিত থাকলেও ১৩ মে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের দৃষ্টিগোচর হয় যে; একটি প্রতারক চক্র ভুয়া কার্যাদেশ প্রস্তুত করে ‘নাছের ইন্টারন্যাশনাল’ নামে একটি প্রতিষ্ঠানকে আউটসোর্সিং পদ্ধতিতে জনবল সরবারহের কার্যাদেশ প্রাপ্ত প্রতিষ্ঠান হিসেবে প্রচার করে ভুক্তভোগীদের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার পাঁয়তারা করছে। এজন্য গত ১৩ মে সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে সংশ্লিষ্ট সবাইকে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য আহ্বান জানানো হয়।

ওই ভুয়া কার্যাদেশের বিষয়ে তদন্তের মাধ্যমে জালিয়াতি চক্রটিকে শনাক্ত করে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য ১৪ মে রংপুর মেট্রোপলিটন তাজহাট থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

এএম/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]