বাকৃবিতে ফি মওকুফের দাবি ছাত্র ফ্রন্টের

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক
বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক বাকৃবি
প্রকাশিত: ০৪:৫৬ পিএম, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বাকৃবি) করোনাকালে শিক্ষার্থীদের ফি মওকুফ ও হোটেলগুলোতে খাবারের দাম কমিয়ে মূল্য নির্ধারণ করার দাবি জানিয়ে স্মারকলিপি প্রদান করেছে সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট।

বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. একেএম জাকির হোসেনকে দুই দফা দাবিতে এ স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

স্মারকলিপিতে বলা হয়, করোনা পরিস্থিতির কারণে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো প্রায় দেড় বছর বন্ধ ছিলো। সরকারি নির্দেশনা মেনে খুলছে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো। এরই ধারাবাহিকতায় বাকৃবিতে হল খুলবে ২৪ সেপ্টেম্বর এবং পরীক্ষা শুরু হবে ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে। পরীক্ষার আগেই পরিশোধ করতে হয় বেতন ফি। ছাত্রদের কাছ থেকে এ সময়ের বেতন ফি নেওয়া কোনোভাবেই মানবিক সিদ্ধান্ত হবে না। কারণ করোনাকালে সারাদেশের মানুষের ওপর অর্থনৈতিক-মানসিকসহ সার্বিকভাবে যে দুর্দশা নেমে এসেছে তা আমরা প্রত্যেকেই প্রত্যক্ষ করছি। এজন্য আমরা বেতন ফি মওকুফের দাবি জানাচ্ছি।

সেখানে আরও বলা হয়, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা আরও একটি সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছি। দেখা যাচ্ছে জব্বার মোড়ের বিভিন্ন খাবারের হোটেলগুলোতে খাবারের দাম আগের তুলনায় অনেক বেশি, মানও নিম্নমুখী। ছাত্রদের ওপর এটি বড় অর্থনৈতিক চাপ সৃষ্টি করেছে। এ জন্য সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের পক্ষ থেকে আমরা এ বিষয়ে হস্তক্ষেপ, হলগুলোর ডাইনিংয়ে সাবসিডি বৃদ্ধি ও খাবারের নূন্যতম মূল্য নির্ধারণ করার দাবি জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. একেএম জাকির হোসেন বলেন, ফি মওকুফের বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করবো এবং হোটেলগুলো পর্যবেক্ষণ করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

আরএইচ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]