ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে ঢাবি শিক্ষককে অব্যাহতি

নিজ বিভাগের এক ছাত্রীকে যৌন সম্পর্ক স্থাপনের প্রস্তাব দিয়ে অ্যাকাডেমিক কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি পেয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) সঙ্গীত বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. এনামুল হক।

গত মঙ্গলবার সঙ্গীত বিভাগের এক ছাত্রীর অভিযোগের ভিত্তিতে ওই শিক্ষককে সব ধরনের শিক্ষামূলক কার্যক্রম থেকে আগামী এক বছরের জন্য অব্যাহতির সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিভাগের অ্যাকাডেমিক কমিটি।

শুক্রবার (১৯ আগস্ট) দিনগত রাতে বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন সঙ্গীত বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. দেবপ্রশাদ দাঁ।

বিভাগ সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি রাজধানীর একটি রেস্টুরেন্টে বিভাগের তৃতীয় বর্ষের এক ছাত্রীকে যৌন সম্পর্ক স্থাপনের প্রস্তাব দেন ওই শিক্ষক। এসময় ভুক্তভোগী ছাত্রী এনামুল হকের কথোপকথন রেকর্ড করেন। পরে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ এনে বিভাগীয় চেয়ারপারসন বরাবর একটি অভিযোগ দাখিল করেন।

অভিযোগের ভিত্তিতে গঠিত তদন্ত কমিটি ঘটনার সত্যতা পায়। অ্যাকাডেমিক কমিটির সভায় এনামুল হক তার অপরাধের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন বলেও জানা গেছে।

এ বিষয়ে সংগীত বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. দেবপ্রসাদ দাঁ জাগো নিউজকে বলেন, শিক্ষার্থীর অভিযোগের ভিত্তিতে অধিকাংশ শিক্ষকের মতামত অনুযায়ী বিভাগের অ্যাকাডেমিক কাউন্সিল সভায় অভিযুক্ত শিক্ষককে বিভাগের সব ধরনের অ্যাকাডেমিক কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দিতে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের কাছে সুপারিশ করা হয়েছে।

তিনি বলেন, ক্লাস, পরীক্ষা থেকে শুরু করে সব ধরনের অ্যাকাডেমিক কার্যক্রম থেকে ওই শিক্ষককে বিরত থাকতে বলা হয়েছে। তবে সিন্ডিকেটের মাধ্যমে বিধি মোতাবেক পরবর্তী চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

এ বিষয়ে একাধিকবার অভিযুক্ত শিক্ষকের সঙ্গে কথা বলার চেষ্টা করা হলেও তার ফোন নম্বরটি বন্ধ পাওয়া যায়।

এমকেআর

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।