হকার ঠেকাতে রাস্তায় মেয়র আইভী, ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি নারায়ণগঞ্জ
প্রকাশিত: ০৫:১১ পিএম, ১৬ জানুয়ারি ২০১৮

নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপি শামীম ওসমান মঙ্গলবার বিকেল থেকে শহরের ফুটপাতে হকারদের বসার নির্দেশ দেয়ার পর এবার হকারদের ঠেকাতে রাস্তায় নেমেছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী। মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে নগর ভবন থেকে হাজার হাজার নেতাকর্মী নিয়ে শহরের চাষাড়া যান তিনি।

সেখানে পৌঁছার পর মেয়র আইভী ও এমপি শামীম ওসমান সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া শুরু হয়েছে। বর্তমানে নারায়ণগঞ্জ শহরে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

এর আগে সোমবার বিকেলে শহরের চাষাঢ়ায় সলিমুল্লাহ সড়কে হকারদের সমাবেশে এমপি শামীম ওসমান বলেছিলেন, আমি কাউকে অনুরোধ করতে আসি নাই। আমি সেলিম ওসমান না আমি শামীম ওসমান। আমি আমার ভাই সেলিম ওসমানের মতো ভদ্রলোক না। তাই অনুরোধ নয়, আমি নির্দেশ দিচ্ছি নারায়ণগঞ্জের হকাররা কাল থেকে ফুটপাতে বসবে।

তার এ বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় সন্ধ্যায় মেয়র আইভী বলেন, শহরে জনগণ ও হকারদের বিষয়টি দেখার দায়িত্ব শুধুমাত্র সিটি কর্পোরেশনের। নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপি শামীম ওসমান হকারদের নিয়ন্ত্রণের জন্য যুবলীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতাদের দায়িত্ব দিয়েছেন। এটা কি তাদের কাজ? হকারদের দেখার দায়িত্ব তাদের নয়, এটা সিটি কর্পোরেশনের কাজ।

 

jagonews24

তিনি আরও বলেন, জনগণের সুবিধার্থেই প্রশাসন ও সিটি কর্পোরেশনের যৌথ উদ্যোগে নারায়ণগঞ্জ শহরের ফুটপাত থেকে হকারদের উচ্ছেদ করা হয়েছে। আমরা জনগণের সুবিধার কথাই চিন্তা করেছি। হকারদেরকে হকার্স মার্কেটে গিয়েই বসতে হবে।

উল্লেখ্য, নারায়ণগঞ্জ শহর ফুটপাত দখলমুক্ত রাখতে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন ২৫ ডিসেম্বর হকার উচ্ছেদ অভিযান কার্যক্রম শুরু করে। হকারদের উচ্ছেদের পর তারা নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপি শামীম ওসমানের কাছে ছুটে যান। তখন শামীম ওসমান হকারদের বলেছিলেন- এটা সিটি কর্পোরেশনের কাজ। এ বিষয়ে সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভীর সঙ্গে যোগাযোগ করতে হবে। তার নির্দেশেই পুলিশ হকারদের উচ্ছেদ করেছে। ওই দিন শামীম ওসমান হকারদের পাশে থাকার ঘোষণাও দিয়েছিলেন।

শাহাদাত হোসেন/আরএআর/আরআইপি

আপনার মতামত লিখুন :