আমার স্বর্ণের চেইন নিয়ে যাচ্ছে, আমি শুধু তাকিয়ে দেখছি

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি ভৈরব (কিশোরগঞ্জ)
প্রকাশিত: ০৫:০০ পিএম, ১১ অক্টোবর ২০১৮

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে রান্নাঘরের গ্রিল কেটে প্রবাসী এক পরিবারের লোকজনকে অজ্ঞান করে নগদ টাকা, মোবাইল ও স্বর্ণালঙ্কার চুরি করে নিয়ে গেছে অজ্ঞান পার্টির সদস্যরা।

শহরের ভৈরবপুর উত্তরপাড়ার ইটালি প্রবাসী আব্দুল লতিফ মিয়ার বাড়িতে বুধবার মধ্যরাতে এ ঘটনা ঘটে। সকালে অজ্ঞান অবস্থায় গৃহকর্তা আব্দুল লতিফ, স্ত্রী হাসিনা বেগম ও তার মেয়ে আকলিমা বেগমকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

স্থানীয় ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, বুধবার রাত ২টার দিকে রান্নাঘরের জানালার গ্রিল কেটে ঘরে ঢুকে অজ্ঞান পার্টির সদস্যরা। পরে ঘর থেকে নগদ টাকা, একটি মোবাইল ও স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে যায় তারা।

জ্ঞান ফেরার পর প্রবাসীর স্ত্রী হাসিনা বগেম বলেন, প্রতিদিনের মতো রাত ১১টার দিকে ঘুমিয়ে পড়ি আমরা। মাঝরাতে আমার গলা থেকে স্বর্ণের চেইন ছিনিয়ে নিয়ে যাচ্ছে তারা। আমি শুধু তাকিয়ে দেখছি। কিন্তু বেড থেকে উঠে দাঁড়ানোর মতো শক্তি ছিল না শরীরে।

সকালে আমাদেরকে হাসপাতালে নিয়ে আসে প্রতিবেশীরা। এখন কিছুটা সুস্থ আছি। বাড়ি আসার পর দেখলাম নগদ টাকা, আমার এবং মেয়ের গলার স্বর্ণের চেইনসহ ও আলমারিতে রাখা ১২ ভরি স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে গেছে তারা।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ভৈরব থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক মো. আবুল খায়ের বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে রান্নাঘরের গ্রিল কাটা ও ঘরের মালামাল অগোছালো দেখতে পাই। এ ঘটনাটি ঘটিয়েছে দুর্বৃত্তরা। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আসাদুজ্জামান ফারুক/এএম/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]