সখীপুরে ঘোড়াকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে হত্যা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি টাঙ্গাইল
প্রকাশিত: ০৮:১০ পিএম, ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার দিনমজুর শহিদুল আলমের উপার্জনের একমাত্র মাধ্যম ছিল একটি ঘোড়া। শনিবার রাতে তার সেই ঘোড়াটির গলায় ফাঁস লাগিয়ে মেরে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা।

জানা যায়, শহিদুলের অভাব-অনটনের ছয় সদস্যের সংসার। ঘোড়ার গাড়ি দিয়ে সংসার ও দুই সন্তানের লেখাপড়ার খরচ জোগানোর তিনি। পাশাপাশি ওষুধ কিনতেন বৃদ্ধ মায়ের জন্য। কিন্তু প্রিয় ঘোড়াটি হারিয়ে এখন নিঃস্ব শহিদুল আলম। কিভাবে চলবে তার সংসার ও ছেলে-মেয়েদের লেখাপড়ার খরচ এ নিয়ে দিশেহারা তিনি। শহিদুল উপজেলার বড়চওনা গায়েন মোড় এলাকার মাজম আলীর ছেলে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, শনিবার শহিদুল আলম তার ঘোড়াটি গোয়াল ঘরে রেখে ঘুমিয়ে পড়েন। রোববার সকালে ঘুম থেকে উঠে ঘোড়াটি গোয়াল ঘরে না পেয়ে দিশেহারা হয়ে খুঁজতে থাকেন।

পরে স্থানীয়রা বাড়ির পাশে সামাজিক বনায়নের গাছের সঙ্গে গলায় রশি দিয়ে ঝুলানো অবস্থায় ঘোড়াটি দেখে শহিদুল আলমকে খবর দেন। শহিদুল প্রিয় ঘোড়াটি মৃত দেখতে পেয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন।

এ বিষয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য মিজানুর রহমান বলেন, ঘোড়া একটি পশু। তার কোনো দোষ নেই। একটি পশুকে এভাবে গলায় রশি দিয়ে ঝুলিয়ে মেরে ফেলার ঘটনা দুঃখজনক এবং অমানবিক।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সখীপুর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) আইয়ুব আলী বলেন, দিনমজুর শহিদুল আলমের ঘোড়াটিকে মেরে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা। এ বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। এ ঘটনায় জড়িত দুর্বৃত্তদের খুঁজে বের করা হবে।

এএম/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :