রাজ্জাকের পদত্যাগের খবর দেখে জামায়াত নেতার পদত্যাগ

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি দিনাজপুর
প্রকাশিত: ০৪:২২ এএম, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

জামায়াতে ইসলামী থেকে পদত্যাগ করেছেন দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার ভেড়ভেড়ী ইউনিয়ন জামায়াতের সাধারণ সম্পাদক মো. বখতিয়ার উদ্দিন। পদত্যাগের কারণ হিসেবে তিনি বলছেন, জামায়াতে ইসলামী থেকে ব্যারিস্টার আবদুর রাজ্জাকের পদত্যাগের খবরে তার ‘ভুল’ ভেঙেছে। এ ‘ভুল’ শোধরাতেই তিনি পদত্যাগ করেছেন।

উপজেলা জামায়াতের আমিরের কাছে শনিবার ডাকযোগে তিনি লিখিত পদত্যাগপত্র পাঠান। জেলা জামায়াতের আমিরের কাছেও পদত্যাগের অনুলিপি পাঠানো হয়েছে।

পদত্যাগপত্রে বখতিয়ার লিখেছেন, ‌‌স্বাধীনতার অনেক পরে ১৯৭৭ সালে তার জন্ম। ১৯৯০ সালে তিনি জামায়াতে যোগদান করেন। তিনি ইসলামী ছাত্রশিবিরের নীলফামারী জেলা সংগঠনের সভাপতি ছিলেন। স্বাধীনতাযুদ্ধে জামায়াতের ভূমিকা নিয়ে তার অস্পষ্টতা ছিল। কিন্তু গতকাল শুক্রবার দলের কেন্দ্রীয় সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল ও আইনজীবী আব্দুর রাজ্জাকের পদত্যাগপত্র বিভিন্ন গণমাধ্যমে দেখে তিনি বুঝতে পেরেছেন জামায়াতে ইসলামী একটি স্বাধীনতাবিরোধী দল।

তাই এ দেশের নাগরিক হয়ে স্বাধীনতাবিরোধী দলের সঙ্গে তিনি থাকতে চান না। একই সঙ্গে জামায়াতকে জাতির কাছে ক্ষমা চাওয়ারও পরামর্শ দিয়েছেন বখতিয়ার উদ্দিন।

গত ১৫ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর জয়েন্ট সেক্রেটারি জেনারেল ব্যারিস্টার আব্দুর রাজ্জাক দল থেকে পদত্যাগ করেন। দলের আমির মকবুল আহমদকে পাঠানো পদত্যাগপত্রে রাজ্জাক তার পদত্যাগের কারণ হিসেবে মূলত তুলে ধরেন ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় দলটির ভূমিকাকেই।

ব্যারিস্টার রাজ্জাক বলেছেন, ‌‘তিনি দীর্ঘদিন ধরে চেষ্টা করেছেন যাতে একাত্তরের ভূমিকার কারণে দলটি জাতির কাছে ক্ষমা চায়।’ বর্তমানে যুক্তরাজ্যে অবস্থান করছেন বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের এই আইনজীবী।

জেডএ