গৃহবধূ আঁখি হত্যা : স্বামী-শ্বশুর রিমান্ডে

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি সাতক্ষীরা
প্রকাশিত: ০১:৩০ পিএম, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
নিহত আঁখি বসু

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ব্রহ্মরাজপুর এলাকায় গৃহবধূ আঁখি বসুকে (২১) হত্যার অভিযোগে তার স্বামী অরুপ বোস ও শ্বশুর সন্তোস বোস ওরফে এসকে বোসের তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে সাতক্ষীরা নারৗ ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক রেজওয়ানুল ইসলাম এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ জাগো নিউজকে বলেন, গৃহবধূ আঁখি হত্যার রহস্য উন্মোচনে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই হাসনুজ্জামান মামলার তিন আসামির সাতদিনের রিমান্ড আবেদন জানান। শুনানী শেষে আদালতের বিজ্ঞ বিচারক নিহত আঁখির শ্বশুর ও স্বামীর তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। শাশুড়ি অসুস্থ থাকায় তাকে প্রয়োজনে কারা ফটকে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশনা দিয়েছেন আদালত।

মামলার বাদী নিহত আঁখির বাবা যশোর জেলার কেশবপুর উপজেলার স্কুলশিক্ষক গোবিন্দ চন্দ্র বসু বলেন, ব্রহ্মরাজপুর এলাকার সন্তোষ বোসের ছেলে অরুপ বোসের সঙ্গে ২০১৭ সালে আঁখির বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে যৌতুকের দাবিতে আঁখির ওপর নির্যাতন শুরু করে অরুপ বোস। এছাড়া শ্বশুর সন্তোস বোস আঁখিকে কুপ্রস্তাব দিত। একপর্যায়ে গত ১১ ফেব্রুয়ারি রাতে আঁখিকে হত্যা করে মরদেহের মুখে বিষ ঢেলে দিয়ে ঘরের মধ্যে সিলিং ফ্যানে ঝুঁলিয়ে দেয় তারা।

তিনি আরও বলেন, হত্যার পর (১২ ফ্রেব্রুয়ারি) সকালে আঁখির শ্বশুর, শাশুড়ি ও স্বামী পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে এলাকাবাসী আটক করে তাদের পুলিশে দেয়। মরদেহটি পুলিশ উদ্ধার করে। আমি মেয়ে হত্যার বিচার চাই।

সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) হাসানুজ্জামান জাগো নিউজকে বলেন, তিন আসামির মধ্যে দুইজনের রিমান্ড মঞ্জুর হয়েছে। আঁখি বসুর মৃত্যুর বিষয়টি হত্যা না আত্মহত্যা আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদের পর বিস্তারিত জানা যাবে।

আকরামুল ইসলাম/আরএআর/পিআর