জয়ী হয়ে আ.লীগে যোগ দিচ্ছেন বিএনপির ১১ কাউন্সিলর

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক খুলনা
প্রকাশিত: ০৯:৪৩ পিএম, ২৩ মার্চ ২০১৯

আগামীকাল রোববার খুলনা সিটি কর্পোরেশনের ১১ জন নির্বাচিত কাউন্সিলর আওয়ামী লীগে যোগদান করবেন। তারা সবাই বিএনপি ও জামায়াতের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত।

খুলনা ও বাগেরহাটের ১৩ জন জনপ্রতিনিধিকে নগরীর শহীদ হাদিস পার্কে রোববার সংবর্ধনা দেবে খুলনা জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ। এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিএনপি ও জামায়াতের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ১১ জন কাউন্সিলরসহ বিভিন্ন দল থেকে কয়েকশ নেতাকর্মী আনুষ্ঠানিকভাবে আওয়ামী লীগে যোগদান করবেন। এসব কাউন্সিলরের মধ্যে কয়েকজনের বিরুদ্ধে হত্যা ও জ্বালাও-পোড়াও, জমি দখল ও বোমাবাজির একাধিক মামলা রয়েছে।

শনিবার বিকেলে খুলনা প্রেস ক্লাবে সংবর্ধনা কমিটির সভাপতি ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান মিজান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, খুলনা জেলা ও মহানগর থেকে এবং পাশের জেলা বাগেরহাট থেকে নির্বাচিত ১০ জন সংসদ সদস্যসহ, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা, খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এবং খুলনা জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানকে সংবর্ধনা দেয়া হবে। এ গণসংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগ ছাড়াও ১৪ দলের নেতাকর্মীরা উপস্থিত থাকবেন।

যাদের সংবর্ধনা দেয়া হবে তারা হলেন- বাগেরহাট-৩ আসনের সংসদ সদস্য শেখ হেলাল উদ্দিন, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা মশিউর রহমান, শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান, খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক, খুলনা জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশিদ, জাতীয় সংসদের হুইপ পঞ্চানন বিশ্বাস, বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী বেগম হাবিবুন নাহার, খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য শেখ সালাহ উদ্দিন জুয়েল, খুলনা-৫ আসনের সংসদ সদস্য নারায়ণ চন্দ্র চন্দ, খুলনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুস সালাম মুর্শেদী, বাগেরহাট-১ আসনের সংসদ সদস্য শেখ সারহান নাসের তন্ময়, খুলনা-৬ আসনের সংসদ সদস্য আকতারুজ্জামান বাবু এবং জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত নারী আসন-১১-এর সংসদ সদস্য গ্লোরিয়া ঝর্ণা সরকার।

দলীয় সূত্র জানায়, এ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগে যোগ দেবেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. সাইফুল ইসলাম, ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ প্রিন্স, ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. সুলতান মাহমুদ, ৮নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. ডালিম হাওলাদার, ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. মনিরুজ্জামান, ১৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. আনিসুর রহমান বিশ্বাস, ২০নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শেখ মো. গাউসুল আযম, ২৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ইমাম হাসান চৌধুরী ময়না, ২৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. গোলাম মাওলা শানু, ৩১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. আরিফ হোসেন মিঠু এবং সংরক্ষিত ১ আসনের কাউন্সিলর মনিরা আক্তার।

এদের মধ্যে কেউ কেউ বিএনপি আবার কেউ কেউ জামায়াত ইসলামীর রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। এদের কয়েকজনের নামে হত্যা, জমি দখল, বোমাবাজি এবং বিএনপি-জামায়াতের হরতাল-অবরোধের সময় জ্বালাও-পোড়াও মামলা রয়েছে।

আলমগীর হান্নান/এএম/এমকেএইচ

আপনার মতামত লিখুন :