হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে প্রবাসীকে হত্যা করল স্ত্রী-সন্তানরা

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি কুড়িগ্রাম
প্রকাশিত: ০৭:৫৭ পিএম, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

কুড়িগ্রামের রৌমারীতে জমি লিখে না দেয়ায় নুরু মিয়া (৫৩) নামের এক প্রবাসীকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে তার স্ত্রী ও তিন ছেলের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটার দিকে উপজেলার বন্দবের গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত নুরু মিয়া ওই গ্রামের মৃত আজিজুর রহমানের ছেলে।

এ ঘটনায় চারজনকে আটক করেছে পুলিশ। আটকরা হলেন নিহত নুরু মিয়ার স্ত্রী রাবেয়া খাতুন (৪৮), ছেলে রাশেদুল ইসলাম (৩০), আব্দুল্লাহ (২২) ও আতিকুর রহমান (১৮)।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, প্রবাসী নুরু মিয়া (৫৩) দীর্ঘদিন কুয়েতে থেকে দেশে ছয়-সাত বিঘা জমি কিনেছেন। এর মধ্যে বেশিরভাগ জমি তিনি স্ত্রী ও ছেলেদর নামে করে দেন। তিন বিঘা জমি তার নিজের নামে রাখেন। দীর্ঘদিন থেকে নুরু মিয়ার নামে কেনা জমি নিজেদের নামে লিখে দিতে চাপ দেন তার স্ত্রী ও তিন ছেলে। এ নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরে তাদের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে বৃহস্পতিবার দুপুরে মাকে সঙ্গে নিয়ে নুরু মিয়ার তিন ছেলে তাকে ঘরের মেঝেতে ফেলে হাতুড়ি দিয়ে এলোপাতাড়ি আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান।

রৌমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. দিলওয়ার হাসান ইনাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থল গিয়ে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। শুক্রবার ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত নিহতের স্ত্রী ও তিন ছেলেকে আটক করা হয়েছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন।

নাজমুল/এমবিআর/জেআইএম