তিনদিন পর কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌ-রুটে চলছে পারাপার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি মাদারীপুর
প্রকাশিত: ১২:৩৯ পিএম, ১০ অক্টোবর ২০১৯

নাব্য সঙ্কট দূর হওয়ায় এবং স্রোতের তীব্রতা কিছুটা কমায় প্রায় তিনদিন বন্ধ থাকার পর বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) সকাল থেকে কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌ-রুটে ১১টি ফেরি দিয়ে যানবাহন পারপার শুরু হয়েছে। তবে এখনও বন্ধ আছে ৭টি ফেরি। এ রুটে মোট ফেরির সংখ্যা ১৮টি।

বিআইডব্লিউটিসি জানিয়েছে সকাল ৮টার দিকে রোরোসহ অন্যান্য ফেরি চলাচল শুরু করে এবং সকাল ১০টার দিকে কাঁঠালবাড়ি ঘাট থেকে একটি ডাম্প ফেরি গাড়ি বোঝাই করে ছেড়ে যায়। এর আগে গত সোমবার (৭ অক্টোবর) সন্ধ্যা থেকে তীব্র স্রোত ও নাব্য সঙ্কটের কারণে সব ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। তবে মঙ্গলবার দুপুর থেকে ছোট দুটি ফেরি চলাচল করেছিল।

এদিকে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় কাঁঠালবাড়ি ঘাটে আটকা পড়ে সহস্রাধিক পরিবহন। বিআইডব্লিউটিসির কাঁঠালবাড়ি ঘাট সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

সূত্রটি জানায়, চ্যানেলমুখে নাব্য সঙ্কটের কারণে ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। গত তিনদিন ধরে ড্রেজিংয়ের মাধ্যমে নাব্যসঙ্কট নিরসন করা হয়। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে ফেরি চলাচলে কিছুটা উন্নতি ঘটে। এ নৌরুটে মোট ১৮টি ফেরি রয়েছে। এর মধ্যে সকাল থেকে ১১টি ফেরি চলাচল শুরু করেছে।

এদিকে ফেরি চলাচল শুরু হওয়ায় ঘাট এলাকায় ফিরে এসেছে চাঞ্চল্য। ঘাটে আটকে থাকা পরিবহনগুলো ধীরে ধীরে পারাপার শুরু করায় কমতে শুরু করেছে যানজট।

বিআইডব্লিউটিসির কাঁঠালবাড়ী ফেরি ঘাটের ব্যবস্থাপক আব্দুস সালাম মিয়া বলেন, 'সকাল থেকে ১০টি ফেরি চলছে। পরে আরও একটি ডাম্প ফেরি গাড়ি লোড করে ছেড়েছি। সেটি ঠিকমত চলাচল করতে পারলে আশা করি সব ফেরিই চলবে।'

একে এম নাসিরুল হক/এমএমজেড/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]