বিষাক্ত কেমিক্যাল ও রঙ দিয়ে জুস তৈরি

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: ০৯:৩০ পিএম, ১৩ অক্টোবর ২০১৯

দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলায় অনুমোদনহীন শিফাত ফুড প্রোডাক্টস নামে একটি নকল জুস ফ্যাক্টরির সন্ধান পেয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

রোববার দুপুরে ওই ফ্যাক্টরিতে অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ নকল জুস উদ্ধার, ফ্যাক্টরি সিলগালা ও মালিককে ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।

ফ্যাক্টরির মালিকের নাম আলমগীর হোসেন। তিনি চিরিরবন্দর উপজেলার গোবিন্দপুর গ্রামের আব্দুল হাই সরকারের ছেলে।

ফুলবাড়ী উপজেলার উত্তর সুজারপুর সরকারপাড়া গ্রামে ওই ফ্যাক্টরিতে অভিযান চালান ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দিনাজপুর ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মমতাজ বেগম। এ সময় উপস্থিত ছিলেন দিনাজপুর ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের কর্মকর্তা মো. এরশাদ আলী ও উপজেলা স্বাস্থ্য পরিদর্শক জগদিশ মহন্ত।

স্থানীয়রা জানান, দীর্ঘদিন থেকে আলমগীর হোসেন স্থানীয় আব্দুর রহমানের বাসায় ভাড়া থাকতেন। গোপনে স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর জুসের ফ্যাক্টরি তৈরি করে ব্যবসা করার বিষয়টি জানা ছিল না স্থানীয়দের।

বাসার মালিক আব্দুর রহমান বলেন, আলমগীর তিন বছর থেকে পরিবারসহ আমার বাসা ভাড়া নিয়ে বাস করছেন। কিন্তু গোপনে আলমগীর নকল জুস তৈরি করছেন বিষয়টি আমি জানতাম না।

ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মমতাজ বেগম বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালানো হয়। অনুমোদনহীন ওই ফ্যাক্টরিতে বিষাক্ত কেমিক্যাল ও রঙ দিয়ে নকল জুস তৈরি করছেন আলমগীর। ভোক্তা অধিকার আইনে তাকে ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একই সঙ্গে লক্ষাধিক টাকার নকল জুস ধ্বংস করা হয়েছে।

এমদাদুল হক মিলন/এএম/এমএস