বুলবুল আতঙ্কের মধ্যে মায়ের কোলে এলো ‘বুলবুলি’

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি পটুয়াখালী
প্রকাশিত: ০১:১২ এএম, ১০ নভেম্বর ২০১৯

ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ আতঙ্কে দেশের মানুষ। বিশেষ করে উপকূলীয় অঞ্চলের মানুষ জানমাল নিয়ে যে যার মতো ছোটাছুটি করছে দিগ্বিদিক। শনিবার (৯ নভেম্বর) বিকেল পর্যন্ত পটুয়াখালীর দুর্গম এলাকার ৬৮৯টি আশ্রয় কেন্দ্রে মোট ৪ লাখ ৫৯ হাজার ৮৬৭ মানুষ আশ্রয় নিয়েছে।

আবহাওয়া অফিস মহাবিপদ সংকেত দিলে চরাঞ্চলের মানুষ আশ্রয় কেন্দ্রে অবস্থান নেয়, যার মধ্যে গর্ভবতী মায়েরাও আছেন। এই পরিস্থিতিতে শনিবার দুপুরে জন্ম নেয় এক কন্যা শিশু। ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের সঙ্গে মিলিয়ে তার নাম রাখা হয়েছে বুলবুলি আক্তার বন্যা।

পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার নীলগঞ্জ ইউনিয়নের আবাসনে মা হুমায়রা বেগমের কোলজুড়ে এসেছে ফুটফুটে কন্যা সন্তান বুলবুলি। বুলবুলির বাবা আবুল কালাম পেশায় একজন ডেকোরেটর শ্রমিক।

আবুল কালাম বলেন, দুপুরে আমার কন্যাসন্তান পৃথিবীতে এসেছে। এটা আমাদের প্রথম সন্তান। নীলগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শায়লা শহিদের বাসার পাশে আমাদের আত্মীয়ের বাসা। আজ বন্যার দিনে আমাদের মেয়ের নাম রেখেছেন বুলবুলি আক্তার বন্যা। মা-মেয়ে দুজনই সুস্থ আছে।

নীলগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাড নাসির উদ্দীন মাহমুদ জানান, নীলগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শায়লা শহিদ আবাসনে জন্ম নেয়া কন্যা শিশুর নাম রেখেছেন বুলবুলি আক্তার বন্যা।

১ নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য প্রফুল্ল কুমার হাওলাদার জানান, নীলগঞ্জ আবাসনে আবুল কালাম ও হুমায়রা বেগম দম্পতির বসবাস। হুমায়রা গর্ভবতী ছিলো। শনিবার দুপুর দেড়টায় আবাসনের ঘরে বসে এক কন্যা সন্তানের জন্ম দেন।

এ বিষয়ে নীলগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শায়লা শহিদের মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে বন্ধ থাকায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

মহিব্বুল্লাহ্ চৌধুরী/এমএসএইচ