পদ্মা সেতুর আড়াই কিলোমিটার দৃশ্যমান

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি মুন্সিগঞ্জ
প্রকাশিত: ০৪:০০ পিএম, ১৯ নভেম্বর ২০১৯

১৬তম স্প্যান বসানোর মধ্য দিয়ে আড়াই কিলোমিটার দৃশ্যমান হয়েছে স্বপ্নের পদ্মা সেতুর। মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) দুপুর সোয়া ১টার দিকে পদ্মা সেতুর মাওয়া প্রান্তে ১৬ ও ১৭ নম্বর পিলারের উপর ‘থ্রি ডি’ নম্বরের স্প্যানটি বসানো হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে পদ্মা সেতুর প্রকৌশলী হুমায়ুন কবির বলেন, মঙ্গলবার সকাল ৯টার দিকে ভাসমান ক্রেনযোগে স্প্যানটি মুন্সিগঞ্জের লৌহজং উপজেলার কুমারভোগ পদ্মা সেতুর কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে নিয়ে যাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু নদীতে কুয়াশা থাকায় সকাল পৌনে ১০টায় এটি নিয়ে আসা হয়। কনস্ট্রাকশন ইয়ার্ড থেকে ১৬ ও ১৭ নম্বর পিলারের দূরত্ব কম হওয়ায় এটি নিয়ে যেতে ভাসমান ক্রেনের তেমন সময় লাগেনি। তাই অল্প সময়ের মধ্যেই স্প্যানটি পিলারের উপর বসানো গেছে।

তিনি বলেন, ১৬তম স্প্যান বসানোর মধ্য দিয়ে পদ্মা সেতুর প্রায় আড়াই কিলোমিটার দৃশ্যমান হলো আজ। চলতি মাসেই পদ্মা সেতুতে আরও দুটি স্প্যান বসবে। আগামী কয়েকদিনের মধ্যে ‘ফোর ডি’ নম্বর স্প্যানটি ২২ ও ২৩ নম্বর খুঁটিতে বসবে। এটির প্রস্তুতিও প্রায় শেষ। আরেকটি স্প্যান বসবে ২১ ও ২২ নম্বর পিলারের উপর। এখন দিন গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে পদ্মা সেতুও দীর্ঘায়িত দৃশ্যমান হবে বলেও জানান পদ্মা সেতুর প্রকৌশলী হুমায়ুন কবির।

Munshiganj-Footage-(2).jpg

এর আগে গত ২২ অক্টোবর ১৫তম স্প্যানটি বসানো হয়েছিল। ২৮ দিন পর ১৯ নভেম্বর ১৬তম স্প্যানটি বসানো হলো। তবে নাব্যতা সংকট না হলে এই সময়ের মধ্যে আরও একাধিক স্প্যান বসানো যেত।

২০১৭ সালের ২৯ সেপ্টেম্বর সেতুর প্রথম স্প্যান, ২০১৮ সালের ২৮ জানুয়ারি দ্বিতীয়, ১০ মার্চ তৃতীয়, ১৩ এপ্রিল চতুর্থ, ২৯ জুন পঞ্চম, ২০১৯ সালে ২৩ জানুয়ারি ষষ্ঠ, ২০ ফেব্রুয়ারি সপ্তম, ২০ মার্চ অষ্টম, ১৮ এপ্রিল নবম স্প্যান বসানো হয়। প্রতিটি স্পেনের দৈর্ঘ্য ১৫০ মিটার। ৪২টি পিলারের ওপর ৪১টি স্প্যান বসিয়ে ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ পদ্মা সেতু নির্মাণ করা হবে। ইতোমধ্যে সবকটি পিলার দৃশ্যমান হয়েছে।

ভবতোষ চৌধুরী নুপুর/এএম/এমএস