বিএনপির আমলে দলীয় অপরাধীদের বিচার হয়নি : কাদের

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি সাভার (ঢাকা)
প্রকাশিত: ০৫:৪৩ পিএম, ০২ ডিসেম্বর ২০২০

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, অনিয়ম ও দুর্নীতির আশ্রয় নিলে আমরা নিজেদের দলীয় নেতাকর্মী এমনকি জনপ্রতিনিধিদেরও ছাড় দিচ্ছি না, অন্যায় করলে পক্ষ নিচ্ছি না, প্রশ্রয়ও দিচ্ছি না। অথচ বিএনপি অনুসরণ করছে সন্ত্রাস ও তোষণের নীতি। তারা সরকারের উন্নয়নমূলক কাজের অন্ধ সমালোচনা করে যাচ্ছেন।

তিনি বলেন, করোনাকালীন দুঃসময়ে বিএনপি জনগণের আরও করুণ অবস্থা প্রত্যাশা করেছিল। তারা বলেছিলেন, মানুষ না খেতে পেয়ে বিনা চিকিৎসায় রাস্তায় মরে পড়ে থাকবে। কিন্তু আল্লাহর অশেষ রহমতে সেই পরিস্থিতি হয়নি বলে বিএনপির মনে খুব জ্বালা।

তিনি আরও বলেন, বিএনপি নিজেরাই আত্মস্বীকৃত দুর্নীতিবাজ দল। তাদের গঠনতন্ত্রের ধারা ৭ বাতিলের মাধ্যমে সেটাই তারা প্রমাণ করেছেন।

বুধবার (২ ডিসেম্বর) দুপুরে সাভারের নয়ারহাট দ্বিতীয় সেতুর চার লেন কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

jagonews24

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি সুবিধাবাদ জিন্দাবাদে বিশ্বাস করে বলে গঠনতন্ত্র থেকে এক রাতে কলমের খোঁচায় ধারা ৭ বাতিল করেছে। ধারা ৭-তে বলা আছে, চিহ্নিত দুর্নীতিবাজরা নেতা কিংবা জনপ্রতিনিধি হতে পারবেনা এবং মাদকসেবী বা দেউলিয়া কোনো ব্যক্তি বিএনপির নেতা হতে পারবেন না। আমি চ্যালেঞ্জ করে বলতে পারি, বিএনপি সন্ত্রাসীদের লালন করে। তাদের আমলে কোনো দলীয় অপরাধীর অপরাধের বিচার হয়নি। দলগতভাবে তারা হত্যা আর ষড়যন্ত্রের রাজনীতিতে বিশ্বাসী এবং এটাই তাদের রাজনৈতিক ঐতিহ্য।

দেশের মানুষের ভোগান্তি আর কষ্টই বিএনপির প্রত্যাশা বলে মন্তব্য করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। তিনি বলেন, তারা সরকারের বিরোধিতা করতে গিয়ে দেশ ও জনগণের উন্নয়নের বিরোধিতা করে যাচ্ছেন। জনগণ এখন আর তাদের কথায় সায় দেয় না। তাদের আন্দোলনের ডাক আষাঢ়ের তর্জন-গর্জনের মতোই সার।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ঢাকা-২০ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা বেনজীর আহমেদ, পৌর মেয়র গোলাম কবির মোল্লা প্রমুখ।

জিওবির অর্থায়নে ১৯৩.৩০ মিটার সেতুটির প্রাক্কলিত ব্যয় ধরা হয়েছে ১০৫.৭৩ কোটি টাকা, চুক্তি মূল্য ৯৫.১৫৩০ কোটি টাকা এবং বাস্তবায়নকাল ০১-১১-২০২০ থেকে ৩১-১০-২০২২ পর্যন্ত।

ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানগুলো হলো-মাসুদ হাই-টেক ইঞ্জিনিয়ারিং লিমিটেড, হাসান টেকনো বিল্ডার্স লিমিটেড ও রানা বিল্ডার্স (প্রা.) লিমিটেড (জেভি)।

ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের আমিনবাজার, সালেহপুর ও নয়ারহাট নামক তিনটি সেতু নির্মাণ প্রকল্পের অধীনে ১৯.৪০ মিটার প্রশস্ত সেতুটির সঙ্গে ৬ লেনবিশিষ্ট ৮০০ মিটার দৈর্ঘ্য ও ২৪.৬০ মিটার প্রশস্ত অ্যাপ্রোচ সড়ক, একটি আন্ডারপাস, ১৬০০ মিটার ইউলুপ সড়ক, একটি ফুটওভার ব্রিজ ও একটি বাস-বে নির্মাণ করা হবে।

আল-মামুন/এসআর/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]