কৃষি উপকরণ ও ব্যবহারবিধি বাংলায় প্রচলনের প্রস্তাব

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক খুলনা
প্রকাশিত: ১২:১৮ এএম, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১

ফসল উৎপাদনে কৃষক প্রয়োজনীয় যেসব সার, বীজ, কীটনাশক ও সংশ্লিষ্ট উপকরণ ব্যবহার করছেন, তার একাংশ আমদানি করা হয়। এসব আমদানিকৃত কৃষি পণ্যের নাম ও ব্যবহারবিধি বিদেশি ভাষায় লেখা থাকে। ফলে মাঠ পর্যায়ের কৃষকরা এর ব্যবহারবিধি নিয়ে দ্বিধায় ভোগেন। কৃষি পণ্যের নাম ও ব্যবহারবিধি বাংলায় প্রচলন করার আইন প্রণয়ন করা হলে কৃষকরা ভাষাগত বাধার সম্মুখীন হবেন না।

সম্প্রতি নগরীর একটি অভিজাত হোটেলে ‘কৃষিবিষয়ক সংবাদ পরিবেশনে সাংবাদিকদের দক্ষতা বৃদ্ধি’ শীর্ষক খাদ্য নিরাপত্তা ও টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট লক্ষ্য (এসজিডি) অর্জনে কৃষি উদ্ভাবনকে কার্যকরভাবে ব্যবহারে প্রান্তিক কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করতে সংবাদ প্রচারে খুলনায় গণমাধ্যমকর্মীদের সক্ষমতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ ও মতবিনিময় সভায় উপস্থিত সাংবাদিকরা প্রস্তাব করেন। ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ (এফএফবি) এ প্রশিক্ষণ ও মতবিনিময় সভার আয়োজন করে।

এফএফবির সিইও এবং নির্বাহী পরিচালক আরিফ হোসেন বলেন, জৈবপ্রযুক্তি সমৃদ্ধ ফসল, আধুনিক উদ্ভিদ প্রজনন প্রযুক্তি ইত্যাদির মতো উদ্ভাবনী কৃষি ব্যবস্থা ক্রমবর্ধমান খাদ্য চাহিদা মেটাতে পারে। জনগণ যদি কৃষি উদ্ভাবন গ্রহণের সাফল্য সম্পর্কে জানতে পারে, তখন কৃষক বায়োটেক ফসল এবং ক্রিসপআর এর মতো আধুনিক প্রযুক্তি আত্তীকরণে উদ্বুদ্ধ হবে।

দৈনিক বণিক বার্তার ডেপুটি সিটি এডিটর সাহানোয়ার সাইদ শাহীন বলেন, কৃষির উন্নতির সঙ্গে সঙ্গে তথ্য নির্ভর কৃষি সাংবাদিকতার ক্ষেত্র তৈরি হওয়া প্রয়োজন। প্রশিক্ষণে বৃহত্তর খুলনা অঞ্চলের ২৫ জন সাংবাদিক অংশগ্রহণ করেন।

উল্লেখ্য, এফএফবির বিল অ্যান্ড মেলিন্ডা গেটস ফাউন্ডেশনের অর্থায়নে গঠিত একটি প্রতিষ্ঠান যার মূল লক্ষ্য বাংলাদেশে খাদ্যশস্য উৎপাদনে জৈবপ্রযুক্তিসহ আধুনিক কৃষি প্রযুক্তিবিষয়ক সচেতনতা বাড়ানো। যুক্তরাষ্ট্রের কর্নেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘কর্নেল অ্যালায়েন্স ফর সাইন্স’ এর পৃষ্ঠপোষকতায় জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে ফার্মিং ফিউচার বাংলাদেশ বিভিন্ন কার্যক্রম পরিচালনা করছে।

আলমগীর হান্নান/এসজে

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]