সাভারে ছিনতাইয়ের কবলে সাংবাদিক

উপজেলা প্রতিনিধি উপজেলা প্রতিনিধি সাভার (ঢাকা)
প্রকাশিত: ০৫:৪৫ পিএম, ০৪ মে ২০২১

সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধের সামনে ছিনতাইকারীদের কবলে পড়ে প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র খুইয়েছেন দৈনিক ইত্তেফাকের মানিকগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি শহীদুল ইসলাম সুজন।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার (৪ মে) আশুলিয়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন তিনি।

এর আগে রোববার (২ মে) রাত ১০টার দিকে সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধের সামনে ছিনতাইয়ের কবলে পড়েন শহীদুল ইসলাম সুজন।

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, রোববার রাতে পেশাগত কাজ শেষে নবীনগর থেকে মানিকগঞ্জ ফেরার জন্য ভাড়ায়চালিত প্রাইভেটকারে ওঠেন ওই সাংবাদিক। গাড়িটি গণবিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় আসলে প্রাইভেটকারে থাকা ছদ্মবেশী তিন ছিনতাইকারী তাকে মারধর শুরু করেন।

এ সময় তার কাছে থাকা তিনটি মোবাইল ফোন, স্বর্ণের আংটি, ৩ হাজার টাকা, ঘড়ি ও প্রেস অ্যাক্রিডেশন কার্ড ছিনিয়ে নেয় ছিনতাইকারীরা। পরে তার স্ত্রীকে ফোন করে পাঁচ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। সাংবাদিক পরিচয় দিলে ভয়ভীতি দেখিয়ে কালামপুর বাসস্ট্যান্ডের ১০০ গজ দূরে বিসিক এলাকায় হাত-পা বাঁধা অবস্থায় তাকে ফেলে চলে যায় ছিনতাইকারীরা।

ভুক্তভোগী শহিদুল ইসলাম সুজন বলেন, ‘আমাকে ছিনতাইকারীরা গাড়ি থেকে ফেলে দেয়ার পর তাদের চলে যাওয়ার উপস্থিতি নিশ্চিত হয়ে আমি পাশের একটি বাড়িতে উঠে আশ্রয় নিই। তারা আমার হাতের বাঁধন খুলে দেয় এবং বাড়িতে যোগাযোগ করার জন্য মোবাইল ফোনে কথা বলার সুযোগ দেয়। পরে আমার পরিবারের লোকেরা আমাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য মানিকগঞ্জ জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে থানায় গিয়ে আমি লিখিত অভিযোগ করি।’

এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কামরুজ্জামান বলেন, এই মামলাটি আমরা গুরুত্ব দিয়ে দেখছি। ইতোপূর্বেও এই সড়কে ছিনতাইয়ের ঘটনায় আমরা অপরাধীদের আটক করেছি। দ্রুত আমরা ছিনতাইকারীদের আটক করতে সক্ষম হবো।

আল-মামুন/এসজে/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]