বরিশালে ৯ ইউপিতে হেরেছে আ.লীগ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক বরিশাল
প্রকাশিত: ১০:০৩ পিএম, ২২ জুন ২০২১

বিএনপিবিহীন ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) নির্বাচনে বরিশালের ৫০টি ইউপির মধ্যে ৯টিতে হেরেছে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থীরা। সোমবার (২১ জুন) অনুষ্ঠিত প্রথম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে বরিশাল জেলার ৯টি উপজেলার ৫০ ইউপির বেসরকারি ফলাফল ঘোষণা করা হয়েছে।

এতে আওয়ামী লীগের ৪১টি, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী (স্বতন্ত্র) তিনটি, জাতীয় পার্টির (জাপা) তিনটি এবং ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের একজন প্রার্থী নির্বাচিত হয়েছেন। যদিও এর মধ্যে ১৪ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় এসব ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ভোটের দরকার পড়েনি।

বরিশাল জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ের কয়েকজন নেতার সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, বিএনপি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে না। অন্যদিকে ১৪ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আগেই নির্বাচিত হয়েছেন। গতকাল সোমবার ওই ১৪টি ইউপিতে ভোট হয়নি। বাকি ৩৬ ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে ভোট হয়েছে। সেই অনুযায়ী ৩৬টির মধ্যে আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থীরা ২৭টিতে জয় পেয়েছেন। বাকি নয়টির মধ্যে আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী তিনটি, জাতীয় পার্টির (জাপা) তিনটি এবং ইসলামী আন্দোলনের একজন প্রার্থী নির্বাচিত হন।

জেলা নির্বাচন কার্যালয় থেকে প্রকাশিত ফলাফল অনুযায়ী, বরিশাল সদর উপজেলায় ভোট হওয়া চারটি ইউপির মধ্যে দুটিতে আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা হেরেছেন। নির্বাচিতরা হলেন- জাগুয়া ইউনিয়নে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের প্রার্থী হেদায়েতউল্লাহ খান, টুঙ্গিবাড়িয়া ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী নাদিরা রহমান, কাশিপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের কামাল হোসেন লিটন মোল্লা এবং চড়বাড়িয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. মাহতাব হোসেন সুরুজ।

বাবুগঞ্জ উপজেলার বীরশ্রেষ্ঠ জাহাঙ্গীরনগর (আগরপুর) ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. কামরুল আহসান খান হিমু, মাধবপাশা ইউনিয়নে জাতীয় পার্টির (জাপা) সিদ্দিকুর রহমান, কেদারপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. নুরুল আলম এবং দেহেরগতি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. মশিউর রহমান বিজয়ী হয়েছেন।

jagonews24

হিজলা উপজেলার মেমানিয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী (স্বতন্ত্র) প্রার্থী নাসির উদ্দিন, হরিনাথপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী (স্বতন্ত্র) প্রার্থী মোহাম্মদ তৌফিকুর রহমান, গুয়াবাড়িয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. শাজাহান তালুকদার এবং বড়জালিয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. এনায়েত হোসেন হাওলাদার নির্বাচিত হয়েছেন।

মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী (স্বতন্ত্র) প্রার্থী নিজাম উদ্দিন খান এবং ভাষানচর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. নজরুল ইসলাম চুন্নু নির্বাচিত হয়েছেন।

মুলাদী উপজেলার সদর ইউনিয়নে (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) আওয়ামী লীগের কামরুল আহসান, নাজিরপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. মুস্তাফিজুর রহমান, সফিপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. আবু মুছা, গাছুয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. জসিম উদ্দিন, কাজীরচর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. মন্টু বিশ্বাস এবং চরকালেখা ইউনিয়নে নির্বাচিত হয়েছেন জাতীয় পার্টির (জাপা) মিরাজুল ইসলাম।

বাকেরগঞ্জ উপজেলার গারুরিয়া ইউনিয়নে জাতীয় পার্টির (জাপা) এসএম কাইয়ুম খান, চরাদি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. শফিকুল ইসলাম, দাড়িয়াল ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. শহিদুল ইসলাম হাওলাদার, দুধল ইউনিয়নে (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) আওয়ামী লীগের গোলাম মোর্শেদ, ফরিদপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের এসএম শফিকুর রহমান, কবাই ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. জহিরুল হক তালুকদার, নলুয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের ফিরোজ আলম খান, কলসকাঠী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. ফয়সাল ওয়াহিদ, ভরপাশা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের আশ্রাফুজ্জামান খান খোকন, রঙ্গশ্রী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. বশির উদ্দিন এবং পাদ্রিশিবপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. জাহিদুল হাসান নির্বাচিত হন।

উজিরপুর উপজেলার সাতলা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. শাহিন হাওলাদার, জল্লা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের বেবী রানী দাস, ওটরা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের এম এ খালেক, ষোলক ইউনিয়নে (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) আওয়ামী লীগের আব্দুল হালিম সরদার ও বরাকোঠা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. শহিদুল ইসলাম নির্বাচিত হয়েছেন।

গৌরনদী উপজেলার শরিকল ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের মো. ফারুক হোসেন মোল্লা, বাটাজোর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের আব্দুর রব হাওলাদার (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), খাঞ্জাপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) নূর আলম সেরনিয়াবাত, বার্থী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) আব্দুর রাজ্জাক, চাঁদশী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) নজরুল ইসলাম, মাহিলাড়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) সৈকত গুহ পিকলু ও নলচিড়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) গোলাম হাফিজ মৃধা নির্বাচিত হয়েছেন।

বানারীপাড়া উপজেলার সদর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) আব্দুল জলিল ঘরামী, চাখার ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের সৈয়দ মজিবুল ইসলাম টুকু, বাইশারী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের শ্যামল চক্রবর্তী, বিষারকান্দি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) মো. সাইফুল ইসলাম শান্ত, সলিয়াবাকপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) মো. সিদ্দিকুর রহমান, উদয়কাঠী ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) রাহাত আহমেদ ননী এবং ইলুহার ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়) শহিদুল ইসলাম নির্বাচিত হয়েছেন।

সাইফ আমীন/এআরএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]