রাজশাহীতে জামায়াত-শিবিরের তিন কর্মী গ্রেফতার

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি রাজশাহী
প্রকাশিত: ০১:০৫ এএম, ১২ সেপ্টেম্বর ২০২১

রাজশাহী মহানগরে জামায়াত ও শিবিরের তিনজন কর্মীকে গ্রেফতার করেছে বোয়ালিয়া মডেল থানা পুলিশ।

শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) ভোর সোয়া চারটার দিকে নগরীর বোয়ালিয়া থানার ১৬ নম্বর ওয়ার্ড এলাকায় অভিযান চালিয়ে পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে।

পুলিশ বলছে, রাজশাহীতে সন্ত্রাসী কার্যক্রমের লক্ষ্যে ষড়যন্ত্র করাকালে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে জুম মিটিংয়ের সরঞ্জামাদি, বিপুল পরিমাণ জিহাদি বই, ব্যানার, ক্যাশ রেজিস্টারসহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার হয়।

গ্রেফতাররা হলেন, রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার কয়েরদাড়া বিলপাড়া এলাকার মো. রবিউল শেখ ওরফে রোকন (৪০), দরগাপাড়া এলাকার মো. পারভেজ (২২) ও মতিহার থানার নতুন বুথপাড়া এলাকার মো. হাবিব (২৭)।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার ও মহানগর মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস বলেন, মূলত: রাজশাহী মহানগর এলাকাকে অপরাধ মুক্তকরণ, সব ধরনের নাশকতামূলক কর্মকাণ্ড প্রতিহতকরণ ও সরকারবিরোধী অপপ্রচার নির্মূলের লক্ষ্যে রাজশাহী মহানগর পুলিশ কমিশনার মো. আবু কালাম সিদ্দিক কাজ করে যাচ্ছেন। তারই ধারাবাহিকতায় সরকারবিরোধী নাশকতামূলক সংগঠন জামায়াত ও শিবিরের কর্মীদের শনিবার ভোর সোয়া চারটার দিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

তিনি বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পাওয়া যায়, নগরীর কয়েরদাড়া এলাকায় রবিউল ইসলামের বাড়িতে বেশকিছু জামায়াত ও শিবিরের নেতাকর্মী একত্রিত হয়ে সরকারবিরোধী নাশকতার পরিকল্পনা করছে। তাৎক্ষণিক সেখানে অভিযান চালিয়ে জামায়াত কর্মী রোকন ও দুই শিবিরকর্মীসহ তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়। তখন প্রায় ১০ থেকে ১২ জন পালিয়ে যায়। এ সময় তাদের কাছে থেকে ট্যাব, জামায়াত ও ছাত্র শিবিরের কার্যক্রমের বিভিন্ন রেকর্ডপত্র, জিহাদি বই, ব্যানার, ক্যাশ রেজিস্টার ও দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রসহ উদ্ধার হয়। গ্রেফতারের পর জিজ্ঞাসাবাদের তারা স্বীকার করেছেন, তারা জামায়াত ও শিবিরের সক্রিয় সদস্য।

নগর পুলিশের মুখপাত্র আরও বলেন, তাদের বিরুদ্ধে বোয়ালিয়া থানায় আরও একটি নাশকতার পরিকল্পনার মামলা হয়েছে। এছাড়া তাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলাও রয়েছে। সকালেই তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

সরকারবিরোধী এমন নাশকতার পরিকল্পনাকারীদের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানিয়েছেন নগর পুলিশের এই ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা।

ফয়সাল আহমেদ/এমআরআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]