অশোভন আচরণ ও পেশাগত কাজে বাধাদান

সংবাদ বর্জনের হুমকি ময়মনসিংহের ১০ সাংবাদিক সংগঠনের

জেলা প্রতিনিধি
জেলা প্রতিনিধি জেলা প্রতিনিধি ময়মনসিংহ
প্রকাশিত: ০৬:০৬ পিএম, ০৩ অক্টোবর ২০২২

সাংবাদিকদের সঙ্গে অশোভন আচরণ ও পেশাগত কাজে বাধা দেওয়ায় জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তাদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবিতে স্মারকলিপি দিয়েছেন ময়মনসিংহ জেলার ১০ সাংবাদিক সংগঠনের নেতারা। একই সঙ্গে এ ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে ক্ষমা না চাওয়া পর্যন্ত সংবাদ বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন তারা।

সোমবার (৩ অক্টোবর) বিকেলে জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি দেন সাংবাদিক সংগঠনের নেতারা।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন ময়মনসিংহ সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আতাউল করিম খোকন, ময়মনসিংহ প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক বাবুল হোসেন, জেলা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক মীর গোলাম মোস্তফা, জেলা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মোশারফ হোসেন, সাধারন সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, জেলা টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি অমিত রায়, সাংবাদিক ক্রীড়া চক্রের সভাপতি নিয়ামুল কবীর সজল, প্রেস ক্লাবের যুগ্ম-সম্পাদক আতাউর রহমান জুয়েল, জেলা টেলিভিশন রিপোর্টার্স ইউনিটির সহ-সভাপতি কাজী মোস্তফা মুন্না, নিউজ চ্যানেল জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের (এনসিজেএ) সভাপতি হারুনুর রশীদ, সাধারণ সম্পাদক এসএম হোসাইন শাহীদ, ইয়ুথ জার্নালিস্ট ফোরামের সভাপতি রাকিবুল হাসান রুবেলসহ প্রমুখ।

ময়মনসিংহ প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক বাবুল হোসেন বলেন, গত ২৯ সেপ্টেম্বর সাফজয়ী ময়মনসিংহের ধোবাউড়ার আট নারী ফুটবলারকে জেলা প্রশাসন, জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে যৌথভাবে সংবর্ধনা দেওয়া হয়। ঘটনার দিন স্থানীয় সাংবাদিক ও ঢাকা থেকে আসা সিনিয়র সাংবাদিকরা নারী ফুটবলারদের সংবর্ধনার খবর কভার করার সময় পথে পথে জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তাদের গালমন্দ, অশোভন আচরণ, পেশাগত কাজে বাধাদান ও হেনস্তার শিকার হন। জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের এ ধরনের আচরণে আমরা ক্ষুব্ধ ও মর্মাহত।

তিনি বলেন, এ ঘটনায় দায়ী জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তারা দুঃখ প্রকাশ না করা পর্যন্ত সংবাদ বর্জনের সিদ্ধান্ত বহাল থাকবে। প্রয়োজনে পরবর্তী সময়ে মানববন্ধনসহ দেশজুড়ে আরও কঠোর কর্মসূচির ডাক দেওয়া হবে।

এ বিষয়ে জেলা প্রশাসক ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি মোহাম্মদ এনামুল বলেন, সাংবাদিকদের কাছ থেকে একটি স্মারকলিপি পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এরআগে গত ২ অক্টোবর রাতে ময়মনসিংহ প্রেস ক্লাবে সাংবাদিক ইউনিয়নসহ স্থানীয় সাংবাদিকদের ১০ সংগঠনের যৌথসভায় এ ঘটনার নিন্দা প্রস্তাবসহ জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সবধরনের খবর বর্জনের সিদ্ধান্ত হয়।

মঞ্জুরুল ইসলাম/এসআর/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।