রংপুর সিটি নির্বাচন

আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক রংপুর
প্রকাশিত: ০২:৪৯ পিএম, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২

রংপুর সিটি করপোরেশন (রসিক) নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আতাউর জামান বাবু মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।

মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) দুপুরে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে নেন তিনি। দুপুর দুইটায় এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত একজনই মনোনয়ন প্রত্যাহার করেছেন।

মনোনয়ন প্রত্যাহার শেষে আতাউর জামান বাবু বলেন, দলীয় সিদ্ধান্তকে মেনে নিয়েই আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়াকে সমর্থন জানিয়ে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নিলাম।

এসময় তার সঙ্গে রসিক নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত মেয়র প্রার্থী অ্যাডভোকেট হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়া, মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তুষার কান্তি মণ্ডল, সহ-সভাপতি আবুল কাশেমসহ অন্য নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

মনোনয়ন প্রত্যাহারের বিষয়টিকে স্বাগত জানিয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম রাজু বলেন, দলীয় প্রধান শেখ হাসিনার সিদ্ধান্ত মেনে নিয়ে আতাউর জামান বাবু আজ মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছেন। আমরা জেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে তাকে শুভেচ্ছা জানাই। এখন সবাই এক হয়ে নৌকার বিজয় সুনিশ্চিত করতে হবে।

jagonews24

আওয়ামী লীগের মনোনীত মেয়র প্রার্থী হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়া বলেন, দলের সব নেতাকর্মী আমরা একটা পরিবার। পরিবারে আবেগ, ক্ষোভ থাকতেই পারে। তবে সেই আবেগ দীর্ঘস্থায়ী নয় জন্যই আজ দলীয় সিদ্ধান্তকে মেনে নিয়ে আতাউর জামান বাবু মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছেন। আমরা এখন সবাই এক হয়ে নৌকার বিজয়ে কাজ করবো এবং বিজয় সুনিশ্চিত করে রংপুর সিটি করপোরেশন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দিতে চাই।

মনোনয়ন প্রত্যাহারের বিষয়টি নিশ্চিত করে রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা আবদুল বাতেন বলেন, সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী আতাউর জামান বাবু আজ দুপুরে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।

রংপুর সিটি করপোরেশনে ভোটার সংখ্যা চার লাখ ২৬ হাজার ৪৬৯। এরমধ্যে পুরুষ ভোটার দুই লাখ ১২ হাজার ৩০২ জন এবং নারী ভোটার দুই লাখ ১৪ হাজার ১৬৭ জন। ২২৯টি কেন্দ্রে আগামী ২৭ ডিসেম্বর সকাল সাড়ে ৮টা থেকে বিকেল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত ইভিএমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

এবার মেয়র পদে জাতীয় পার্টির মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা, আওয়ামী লীগের অ্যাডভোকেট হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়া, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ-ইনু) শফিয়ার রহমান, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমিরুজ্জামান পিয়াল, খেলাফত মজলিশের তৌহিদুর রহমান মণ্ডল রাজু, জাকের পার্টির খোরশেদ আলম খোকন, বাংলাদেশ কংগ্রেস পার্টির আবু রায়হান এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী মেহেদী হাসান বনি ও লতিফুর রহমান মিলন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন।

 

জিতু কবীর/এমআরআর/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।