খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য সুপরিকল্পিত আন্দোলন করতে হবে : মওদুদ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৩১ পিএম, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
ফাইল ছবি

কারাবন্দি বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির ইস্যুতে নেতাকর্মীদের তোপের মুখে পড়ে দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ বলেছেন, ‘তার (খালেদা জিয়া) মুক্তির জন্য সুপরিকল্পিতভাবে আন্দোলন করতে হবে। এখন আমাদের একমাত্র এজেন্ডা হবে খালেদা জিয়ার মুক্তি।’

বুধবার (২০ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে বিএনপি আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

মওদুদ আহমদের বক্তব্য চলাকালে এক পর্যায়ে দর্শক সারি থেকে এক নেতা বলে উঠেন- খালেদা জিয়ার মুক্তির কথা বলেন, কবে এবং কীভাবে মুক্তি পাবেন? প্রথম অবস্থায় মওদুদ তা শুনেতে পাননি, তিনি জানতে চাইলে দর্শক সারি থেকে আরেকজন বলেন, কর্মসূচি নাই কেন? হল খালি কেন? নেতাকর্মীরা আসেনি কেন? এরপর বেশকিছু নেতাকর্মী স্লোগান দিতে থাকেন।

পরিস্থিতি শান্ত হলে তিনি বলেন, ‘হবে। একটু ধৈর্য ধরতে হবে। আইনি প্রক্রিয়ায় খালেদা জিয়ার মুক্তি হবে না। একমাত্র পথ হচ্ছে- আন্দোলন। সেজন্যই আমাদের সুপরিকল্পিত আন্দোলন করতে হবে। সেইভাবেই আমাদের কর্মসূচি গ্রহণ করতে হবে। এখন আমাদের একমাত্র এজেন্ডা হবে খালেদা জিয়ার মুক্তি।’

ভাষা আন্দোলনে নিজের অংশগ্রহণের স্মৃতিচারণ করে মওদুদ আহমদ বলেন, একুশের চেতনা ধূলিসাৎ করে দিয়েছে বর্তমান সরকার। এই সরকার মুখে যতই বলুক, তারা কোনোদিনই বিরোধীদল চায় না। বারবার তারাই দেশে স্বৈরাচারী সরকার প্রতিষ্ঠিত করেছে। কেউ এই সরকারকে আর বিশ্বাস করে না। জনগণ ভালো করেই জানে- দেশে কোনো নির্বাচন হয় নাই। ভোট চুরি করে তারা নির্বাচনের নামে দুর্বৃত্তায়ন করে ক্ষমতায় এসেছে।

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আব্দুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, যুগ্ম মহাসচিব খাইরুল কবির খোকন প্রমুখ।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক এমরান সালেহ প্রিন্স, সহ-যুব বিষয়ক সম্পাদক মীর নেওয়াজ আলী নেওয়াজ, সহ-প্রচার সম্পাদক কৃষিবিদ শামিমুর রহমান, মহিলা দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হেলেন জেরিন খান প্রমুখ।

অনুষ্ঠানটি যৌথভাবে সঞ্চালনা করেন বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম আজাদ ও সহ-প্রচার সম্পাদক আমিরুল ইসলাম খান আলীম।

কেএইচ/এমবিআর/পিআর

আপনার মতামত লিখুন :