বিদেশে কোম্পানি খুলতে অর্থ নেয়া যাবে না

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:০৪ এএম, ১৯ এপ্রিল ২০১৯

এখন থেকে বিদেশে সাবসিডিয়ারি কোম্পানি খোলা ও তা পরিচালনার খরচ বাবদ কোনো বৈদেশিক মুদ্রা নিতে পারবেন না বাংলাদেশিরা। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রানীতি বিভাগ থেকে এ-সংক্রান্ত সার্কুলার জারি করা হয়েছে।

এতে বিদ্যমান নীতিমালা সংশোধন করে সাবসিডিয়ারি কোম্পানি খোলার বিষয়টি তুলে দিয়ে শুধু অফিস খোলা ও তা পরিচালনার খরচ বাবদ বৈদেশিক মুদ্রা নেয়ার যাবে বলে বলা হয়েছে।

বৈদেশিক বিনিময় নীতিমালা অনুযায়ী, বিদেশে যেকোনো অফিস ও সাবসিডিয়ারি কোম্পানি খুলতে পারেন বাংলাদেশিরা। আর বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুমোদন ছাড়াই ওই অফিস পরিচালনা করা বাবদ বছরে ৩০ হাজার ডলার নেয়ার সুযোগও রাখা হয়েছে।

তবে বিদেশে সাবসিডিয়ারি কোম্পানি খুলতে হলে সেই দেশের শেয়ার কিনতে হয়। কিন্তু শেয়ার কিনতে হলে বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুমোদন লাগে। এ জন্য সাবসিডিয়ারি কোম্পানির পরিবর্তে শুধু অফিস খোলা যাবে মর্মে নীতিমালায় সংশোধন এনেছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

সার্কুলারে বলা হয়েছে, এখন থেকে কেবল নতুন অফিস খোলা এবং বিদ্যমান অফিসের চলতি ব্যয় তথা অফিস ভাড়া ও স্টাফদের বেতন খরচ মেটানোর কাজে এ অর্থ নেয়া যাবে। কোনো অবস্থাতেই সাবসিডিয়ারি প্রতিষ্ঠান খোলা ও পরিচালনা বাবদ অর্থ নেয়া যাবে না।

এসআই/বিএ