বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর শীর্ষে শ্যামপুর সুগার মিল

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৩৬ পিএম, ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০

বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের জন্য ব্যাংকগুলোকে ২০০ কোটি টাকা করে বিশেষ তহবিল গঠনের সুযোগ দেয়ায় গত সপ্তাহে দেশের শেয়ারবাজারে বড় ধরনের উত্থান হয়েছে।

এর পরও সপ্তাহটিতে কিছু প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দরপতন হয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের প্রতি বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ কম থাকায় এ দরপতন হয়েছে। এরমধ্যে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর তালিকায় শীর্ষ স্থানটি দখল করেছে ‘জেড’ গ্রুপের প্রতিষ্ঠান শ্যামপুর সুগার মিল। বিনিয়োগকারীরা কোম্পানিটির শেয়ার কিনতে আগ্রহী না হওয়ায় সপ্তাহজুড়েই দাম কমেছে। এতে কোম্পানিটির শেয়ার দামে বড় ধরনের পতন হয়েছে।

এদিকে দাম কমে যাওয়ার পরও বিনিয়োগকারীদের একটি অংশ কোম্পানিটির শেয়ার কিনতে চায়নি। এতে সপ্তাহজুড়ে লেনদেন হয়েছে মাত্র পাঁচ লাখ ৬১ হাজার টাকা। আর প্রতি কার্যদিবসে গড় লেনদেন হয়েছে এক লাখ ১২ হাজার টাকা।

অপরদিকে শেয়ারের দাম কমেছে ১২ দশমিক ২৮ শতাংশ। টাকার অঙ্কে প্রতিটি শেয়ারের দাম কমেছে চার টাকা ২০ পয়সা। সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে কোম্পানিটির প্রতিটি শেয়ারের দাম দাঁড়িয়েছে ৩০ টাকা, যা তার আগের সপ্তাহ শেষে ছিল ৩৪ টাকা ২০ পয়সা।

পাঁচ কোটি টাকা পরিশোধিত মূলধনের কোম্পানিটির শেয়ার সংখ্যা ৫০ লাখ। এর মধ্যে সরকারের হাতে আছে ৫১ শতাংশ। বাকি শেয়ারের মধ্যে ৪৫ দশমিক ৯৮ শতাংশ রয়েছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কাছে। আর ৩ দশমিক শূন্য ২ শতাংশ আছে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে।

শ্যামপুর সুগার মিলের পরেই গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর তালিকায় ছিল নর্দান জুট। সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম কমেছে ১০ দশমিক ৪১ শতাংশ। এর পরেই রয়েছে ইস্টার্ন লুব্রিকেন্ট। সপ্তাহজুড়ে এ কোম্পানির শেয়ার দাম কমেছে ৯ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ।

এছাড়া গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর শীর্ষ ১০ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় থাকা- সমতা লেদারের ৭ দশমিক ৫৪ শতাংশ, ইমারেল্ড অয়েলের ৭ দশমিক ৩৩ শতাংশ, স্ট্যান্ডার্ড সিরামিকের ৭ দশমিক ১৭ শতাংশ, ইউনাইটেড এয়ারের ৬ দশমিক ২৫ শতাংশ, রংপুর ডেইরির ৬ দশমিক ১৬ শতাংশ, ডেল্টা স্পিনিংয়ের ৬ শতাংশ এবং মুন্নু জুট স্টাফলার্সের ৫ দশমিক ৯৮ শতাংশ দাম কমেছে।

এমএএস/এএইচ/এমকেএইচ