আগ্রহ হারানোর শীর্ষে ফাইন ফুডস

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৫৭ পিএম, ০৭ আগস্ট ২০২০

পুঁজিবাজারে গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর তালিকায় শীর্ষ স্থানটি দখল করেছে ফাইন ফুডস। বিনিয়োগকারীরা কোম্পানিটির শেয়ার কিনতে আগ্রহী না হওয়ায় সপ্তাহজুড়েই দাম কমেছে। এতে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার দামেও পতন হয়েছে।

এদিকে দাম কমে যাওয়ায় বিনিয়োগকারীদের একটি অংশ কোম্পানিটির শেয়ার কিনেছেন। এতে সপ্তাহজুড়ে লেনদেন হযেছে ২০ কোটি ৯৩ লাখ ৭৪ হাজার টাকা। আর প্রতি কার্যদিবসে গড় লেনদেন হয়েছে ৫ কোটি ২৩ লাখ ৪৩ হাজার টাকা।

অপরদিকে শেয়ারের দাম কমেছে ৭ দশমিক ৮৪ শতাংশ। টাকার অঙ্কে প্রতিটি শেয়ারের দাম কমেছে চার টাকা ৮০ পয়সা। সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস শেষে কোম্পানিটির শেয়ার দাম দাঁড়িয়েছে ৫৬ টাকা ৪০ পয়সা, যা তার আগের সপ্তাহ শেষে ছিল ৬১ টাকা ২০ পয়সা।

শেয়ারের এমন দাম হলেও কোম্পানিটির লভ্যাংশের ইতিহাস ভালো নয়। শেয়ারহোল্ডারদের নামমাত্র লভ্যাংশ দেয়ার কারণে কোম্পানিটি দীর্ঘদিন ধরেই দুর্বল ‘বি’ গ্রুপের তালিকায় রয়েছে। ২০১৯ সালে প্রতিষ্ঠানটি শেয়ারহোল্ডারদের ২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছে। তার আগে ২০১৮ সালে ৩ শতাংশ, ২০১৭ সালে ২ শতাংশ, ২০১৬ সালে ২ শতাংশ এবং ২০১৩ সালে ২ শতাংশ বোনাস শেয়ার লভ্যাংশ দেয় কোম্পানিটি।

ফাইন ফুডসের পরেই গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর তালিকায় ছিল সোনালী পেপার। সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ার দাম কমেছে ৭ দশমিক ৪৯ শতাংশ। এর পরেই রয়েছে শমরিতা হাসপাতাল। সপ্তাহজুড়ে এ কোম্পানির শেয়ার দাম কমেছে ৭ দশমিক ৪০ শতাংশ।

এছাড়া গত সপ্তাহে বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ হারানোর শীর্ষ ১০ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় সিনোবাংলা ইন্ডাস্ট্রিজের ৫ দশমিক ৩৪ শতাংশ, আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংকের ৪ দশমিক ৯৭ শতাংশ, নাহি অ্যালুমেনিয়ামের ৪ দশমিক ৬৪ শতাংশ, ফার্স্ট ফাইন্যান্সের ৩ দশমিক ৯২ শতাংশ, সিমটেক্স ইন্ডাস্ট্রিজের ৩ দশমিক ৭০ শতাংশ সায়হাম টেক্সটাইলের ৩ দশমিক ৬৫ শতাংশ দাম কমেছে।

এমএএস/এএইচ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]