বিকাশের অ্যাড মানি সেবায় যুক্ত এক্সিম ব্যাংক

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৫:০৮ পিএম, ১৬ মে ২০২১

এক্সিম ব্যাংকের ১০ লাখ গ্রাহক এখন কোনো খরচ ছাড়াই বিকাশে দেশের যেকোনো প্রান্ত থেকে যেকোনো সময় টাকা আনতে পারবেন। এ নিয়ে দেশের শীর্ষস্থানীয় ২৯টি বাণিজ্যিক ব্যাংক থেকে বিকাশে টাকা আনার সবচেয়ে বড় প্ল্যাটফর্মটি আরও সমৃদ্ধ হয়েছে।

সম্প্রতি এক্সিম ব্যাংক এবং দেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিস (এমএফএস) প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান বিকাশ যৌথভাবে এই সেবা চালু করে। বিকাশের পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিকাশে টাকা আনতে প্রথমে এক্সিম ব্যাংকের ইন্টারনেট ব্যাংকিংয়ে নিবন্ধিত গ্রাহককে নিজের অথবা প্রিয়জনের বিকাশ নাম্বার বেনিফিশিয়ারি হিসেবে যুক্ত করতে হবে এক্সিম ইন্টারনেট ব্যাংকিং, এআইএসইআরের মাধ্যমে।

এক্সিম ইন্টারনেট ব্যাংকিংয়ে লগ ইন করে গ্রাহক কয়েকটি সুনির্দিষ্ট ধাপে বিকাশ অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠাতে পারবেন সহজেই। প্রথমে ইন্টারনেট ব্যাংকিং আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে ব্যাংক অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করতে হবে। এরপর ‘ফান্ড ট্রান্সফার’ থেকে ‘ট্রান্সফার টু বিকাশ’ অপশনে গিয়ে বিকাশ নাম্বার, ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নাম্বার, টাকার পরিমাণ এবং বিবরণ লিখে ‘সাবমিট’ বাটনে ট্যাপ করতে হবে। এরপর ইনস্ট্যান্ট পিন কোড এবং সিকিউরিটি পিন নাম্বার দিলেই তাৎক্ষণিকভাবে ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থেকে বিকাশ অ্যাকাউন্টে টাকা চলে আসবে।

লেনদেন সম্পন্ন হলে গ্রাহক এসএমএস নোটিফিকেশন পাবেন। বিকাশে টাকা আনার ক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংক কর্তৃক নির্ধারিত লিমিট প্রযোজ্য হবে।

করোনা সংক্রমণের এই সময়ে ঘরে বসেই বিকাশ অ্যাকাউন্টে টাকা এনে এখন এক্সিম ব্যাংকের গ্রাহকরা সেন্ড মানি, মোবাইল রিচার্জ, ইউটিলিটি বিল পরিশোধ, অফলাইন বা অনলাইনে পণ্য কিনে পেমেন্ট করা, বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে অনুদান দেয়া, স্কুল কলেজের বেতন পরিশোধ করা, বিভিন্ন ধরনের অনলাইন নিবন্ধনের ফি পরিশোধ করাসহ অসংখ্য সেবা খুব সহজেই নিতে পারবেন। এছাড়া জরুরি প্রয়োজনে দেশজুড়ে বিকাশের দুই লাখ ৪০ হাজার এজেন্ট পয়েন্টে গিয়ে প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্যবিধি মেনে ক্যাশ আউটও করতে পারবেন গ্রাহকরা।

পাশাপাশি বাংলাদেশে ইস্যুকৃত সকল ভিসা ও মাস্টার কার্ড থেকে বিকাশ অ্যাকাউন্টে টাকা আনার সুযোগ তো রয়েছেই।

ইএআর/এআরএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]