ইয়ানমার হারভেস্টারে ধানের সাশ্রয়

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:৫২ পিএম, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১

শ্রমিক দিয়ে ধান কাটা, মাড়াই, ঝাড়াই ও বস্তাবন্দি করতে নষ্ট হয় ধান। আর এ ধান নষ্ট হওয়া লক্ষণীয়ভাবে কমিয়ে আনে ‘ইয়ানমার হারভেস্টার’। রোববার (২৬ সেপ্টেম্বর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তি এ তথ্য জানায় প্রতিষ্ঠানটি।

এতে বলা হয়, প্রচলিত পদ্ধতিতে শ্রমিক দিয়ে ধান কাটা, মাড়াই, ঝাড়াই ও বস্তাবন্দি করতে কমপক্ষে ৫ শতাংশ ধান নষ্ট হয়। একই কাজ ইয়ানমার কম্বাইন হারভেস্টার দিয়ে করলে ধান নষ্টের পরিমাণ নেমে আসে ১ শতাংশের নিচে।

বিষয়টি তুলে ধরতে, সম্প্রতি চুয়াডাঙ্গার হিজলগাড়ি ডিঙ্গেদহ মাঠে এসিআই মটরসের উদ্যোগে পরীক্ষামূলকভাবে ধান কাটা-মাড়াইয়ের জন্য একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এসিআই মটরসের উদ্যোগে এ অনুষ্ঠানে উপস্থিতি ছিলেন জেলা কৃষি অফিসের কর্মকর্তা, স্থানীয় কৃষক ও কয়েকটি সংবাদমাধ্যমের কর্মী।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি বলা হয়, অনুষ্ঠানে ৪০ শতাংশের এক খণ্ড ধানের জমিকে সমান দুই ভাগে ভাগ করা হয়। এরপর এক অর্ধাংশের ধান ৮ শ্রমিক দিয়ে কেটে মাড়াই ও ঝাড়াই করা হয়। বাকি অর্ধেক অংশের ধান কাটা হয় ইয়ানমার কম্বাইন হারভেস্টার দিয়ে। এতে দেখা যায়, শ্রমিক দিয়ে ধান কাটতে সময় লেগেছে দুই ঘণ্টা ৩২ মিনিট। ধান পাওয়া গেছে ৪৬৮ দশমিক ২৩ কেজি।

অন্যদিকে ইয়ানমার কম্বাইন হারভেস্টার দিয়ে পুরো কাজটি করতে সময় লেগেছে মাত্র ১৭ মিনিট এবং ধান পাওয়া গেছে ৪৯২ দশমিক ৭৯ কেজি। অর্থাৎ হারভেস্টার দিয়ে এসব কাজে সময় সাশ্রয় হয়েছে ৮৮ শতাংশ। আর ধান সাশ্রয় হয়েছে ৪ দশমিক ৯ শতাংশ।

জেডএইচ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]