‘গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড’ পেল প্রাণ-আরএফএল-এর চার প্রতিষ্ঠান

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ১২:০৮ পিএম, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ‘মুজিববর্ষ’ উপলক্ষে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ‘গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড’ পেয়েছে ছয়টি শিল্পখাতের ৩০টি প্রতিষ্ঠান-কারখানা। এর মধ্যে দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্পগ্রুপ প্রাণ-আরএফএল-এর চার প্রতিষ্ঠান পেয়েছে এই অ্যাওয়ার্ড।

বুধবার (৮ ডিসেম্বর) সকাল ১০টায় অ্যাওয়ার্ড প্রদান অনুষ্ঠানে ওসমানী স্মৃতি মিলনাতায়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি সংযুক্ত ছিলেন। অনুষ্ঠানে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান সভাপতি হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে মনোনীত প্রাণ-এর চার প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধির হাতে পুরস্কার তুলে দেন।

প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড পাওয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে রয়েছে- খাদ্য প্রক্রিয়াজাতকরণ খাতে হবিগঞ্জ অ্যাগ্রো। প্লাস্টিক খাতের তিন প্রতিষ্ঠান—বঙ্গ বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস, অলপ্লাস্ট বাংলাদেশ ও ডিউরেবল প্লাস্টিক।

নিরাপদ ও শোভন কর্মপরিবেশে পরিবেশবান্ধব প্রযুক্তি ও দক্ষ শ্রমশক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে আরও অধিক পরিমাণে উৎপাদন নিশ্চিত করে দেশের অর্থনীতির গতিকে বেগবান ও টেকসই করার মাধ্যমে জাতির পিতার স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণ ও দেশীয় শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোকে বিশ্বে প্রতিযোগিতামূলক অংশগ্রহণে উদ্বুদ্ধকরণে ‘গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড ২০২০’ প্রবর্তন করা হয়েছে। এখন থেকে প্রতি বছর এ অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হবে।

হবিগঞ্জ এগ্রো লিমিটেড

হবিগঞ্জ এগ্রো লিমিটেড, প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের একটি প্রতিষ্ঠান। প্রাণ ১৯৮১ সালে বাংলাদেশে ফল ও সবজির উৎপাদনকারী ও প্রসেসর হিসেবে এর কার্যক্রম শুরু করে। বছরের পর বছর ধরে প্রাণ ১৩৪টি দেশে নিয়মিত রপ্তানি করে একটি শীর্ষস্থানীয় ব্র্যান্ডে পরিণত হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি প্রতিটি পর্যায়ে সর্বোচ্চ মানের নিশ্চয়তাসহ আন্তর্জাতিক মান বজায় রাখতে সচেষ্ট থাকে। ১১টি ভিন্ন ভিন্ন বিভাগের অধীনে ২০০টিরও বেশি খাদ্যপণ্যের উৎপাদক হিসেবে প্রাণ বিশ্বব্যাপী প্রশংসিত।

এটি একটি আইএসও ৯০০১ প্রত্যায়িত কোম্পানি ও হালালের সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ বিশ্বব্যাপী গ্রাহকদের জন্য সর্বোত্তম গুণমান নিশ্চিত করে। পারফরম্যান্সে ধারাবাহিকভাবে প্রাণ পরপর ১৪টি জাতীয় রপ্তানি ট্রফি অর্জন করেছে।

বঙ্গ বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস লিমিটেড

দেশের শীর্ষস্থানীয় প্লাস্টিকজাত পণ্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান বঙ্গ বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস প্রতিষ্ঠিত হয় ২০০৮ সালে। এই প্রাইভেট লিমিটেড প্রতিষ্ঠানটি প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের একটি অঙ্গপ্রতিষ্ঠান, যারা মানুষের নিত্যপ্রয়ােজনীয় চাহিদা মেটাতে উৎপাদন করে যাচ্ছে নানা ধরনের আধুনিক মানসম্পন্ন পিভিসি বাথরুম ফিটিংস, পিভিসি ডাের, শিট, উইনড্রো প্রােফাইল, ইলেকট্রিক হােজ পাইপ ও বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস পণ্য। আর এসব পণ্য উৎপাদনের জন্য হবিগঞ্জ জেলার শায়েস্তাগঞ্জ থানায় রয়েছে এর নিজস্ব ফ্যাক্টরি, যা হবিগঞ্জ ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক নামে সুপরিচিত।

বঙ্গ বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস লিমিটেডের ফ্যাক্টরিতে আছে মােট ২৩৭ জন সুদক্ষ কর্মী। বৃহৎ এই শিল্পপ্রতিষ্ঠানটি তার দক্ষ ও পরিশ্রমী কর্মীবাহিনী ও অত্যাধুনিক মেশিনারিজের মাধ্যমে স্থানীয় ও আমদানি করা কাঁচামাল দিয়ে প্রতি বছর গড়ে প্রায় ৬৬ হাজার মেট্রিক টন পণ্য উৎপাদন করে। এসব পণ্য শুধু দেশেই নয়, বিদেশের মাটিতেও সমানভাবে সমাদৃত। বর্তমানে এশিয়া, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য, ইউরােপ ও আমেরিকায় বঙ্গ বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস লিমিটেডের পণ্য রপ্তানি হচ্ছে।

jagonews24

বঙ্গ বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস লিমিটেড তার কাজের অবদানস্বরূপ অর্জন করেছে বিভিন্ন সম্মানজনক অ্যাওয়ার্ড। বাংলাদেশের বৃহৎ শিল্পে উৎপাদনশীলতা বাড়ানো ও উৎকর্ষ অর্জনের জন্য বাংলাদেশ সরকারের শিল্প মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন ন্যাশনাল প্রােডাকটিভিটি অর্গানাইজেশন (এনপিও) হতে ন্যাশনাল প্রােডাকটিভিটি অ্যান্ড কোয়ালিটি এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড-২০১৯ পুরস্কার পায় তারা।

অলপ্লাস্ট বাংলাদেশ লিমিটেড

অলপ্লাস্ট বাংলাদেশ লিমিটেড শতভাগ রপ্তানিমুখী প্রতিষ্ঠান। দেশের শীর্ষস্থানীয় শপিং ব্যাগ, ডাই কাট লুপ হ্যান্ডেল, নন-ওভেন রােল, নন-ওভেন ডাই কাট ব্যাগ, নন-ওভেন টি-শার্ট ব্যাগ ও গার্মেন্টস এক্সেসরিজ উৎপাদনকারী ও রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান অলপ্লাস্ট বাংলাদেশ লিমিটেড প্রতিষ্ঠিত হয় ২০০৯ সালে। এটি প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের একটি অঙ্গপ্রতিষ্ঠান, যারা মানুষের নিত্যপণ্যের চাহিদা মেটাতে উৎপাদন করে যাচ্ছে নানা ধরনের আধুনিক মানসম্পন্ন পণ্য। আর এসব পণ্য উৎপাদনের জন্য গাজীপুর জেলার কালীগঞ্জ থানার মূলগাঁও গ্রামে রয়েছে এর নিজস্ব ফ্যাক্টরি, যা আরএফএল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক নামে সুপরিচিত।

jagonews24

অলপ্লাস্ট বাংলাদেশ লিমিটেডের ফ্যাক্টরিতে আছে মােট ২০ জন সুদক্ষ কর্মী। বৃহৎ এই শিল্পপ্রতিষ্ঠানটি তাদের দক্ষ ও পরিশ্রমী কর্মীবাহিনী ও অত্যাধুনিক মেশিনারিজের মাধ্যমে স্থানীয় ও আমদানি করা কাঁচামাল দিয়ে প্রতি বছর গড়ে প্রায় ২৬ হাজার মেট্রিক টন পণ্য উৎপাদন করে। বর্তমানে এশিয়া, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য, ইউরােপ ও আমেরিকা মহাদেশের প্রায় ১৫০টি দেশে অলপ্লস্ট বাংলাদেশ লিমিটেডের পণ্য রপ্তানি হচ্ছে।

অলপ্লাস্ট বাংলাদেশ লিমিটেড তাদের কাজের অবদানস্বরূপ অর্জন করেছে বিভিন্ন সম্মানজনক অ্যাওয়ার্ড। রপ্তানি বাণিজ্যে উল্লেখযােগ্য অবদানের জন্য ২০১৬-২০১৭ ও ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে রপ্তানি ট্রফি, বাংলাদেশের বৃহৎ শিল্পে উৎপাদনশীলতা বাড়ানো ও উৎকর্ষ অর্জনের জন্য শিল্প মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন ন্যাশনাল প্রােডাকটিভিটি অর্গানাইজেশন (এনপিও) হতে ন্যাশনাল প্রােডাকটিভিটি অ্যান্ড কোয়ালিটি এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড-২০১৫ ও ২০১৮ পায় তারা।

ডিউরেবল প্লাস্টিক লিমিটেড

দেশের শীর্ষ স্থানীয় প্লাস্টিকজাত পণ্য উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান ডিউরেবল প্লাস্টিক লিমিটেড (ডিপিএল) প্রতিষ্ঠিত হয় ২০০৯ সালে। প্রতিষ্ঠানটি প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের একটি অঙ্গপ্রতিষ্ঠান, যারা মানুষের নিত্যপ্রয়ােজনীয় চাহিদা মেটাতে উৎপাদন করে যাচ্ছে আধুনিক মানসম্পন্ন প্লাস্টিকজাত পণ্য। এসব পণ্য উৎপাদনের জন্য গাজীপুর জেলার কালীগঞ্জ থানার মূলগাঁও গ্রামে রয়েছে তাদের নিজস্ব ফ্যাক্টরি, যা আরএফএল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক নামে সুপরিচিত। ফ্যাক্টরিতে আছে মােট ২৯৫ জন সুদক্ষ কর্মী।

jagonews24

বৃহৎ এই শিল্পপ্রতিষ্ঠানটি প্রতি বছর গড়ে প্রায় ৪৫ হাজার মেট্রিক টন প্লাস্টিক পণ্য উৎপাদন করে। এসব পণ্য শুধু দেশেই নয়, বিদেশের মাটিতেও সমানভাবে পরিচিত। বর্তমানে এশিয়া, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য, ইউরােপ ও আমেরিকাসহ প্রায় ৭০টি দেশে ডিউরেবল প্লস্টিক লিমিটেডের পণ্য রপ্তানি হচ্ছে।

কাজের অবদানস্বরূপ ডিউরেবল প্লাস্টিক লিমিটেড পেয়েছে বিভিন্ন সম্মানজনক অ্যাওয়ার্ড। রপ্তানি বাণিজ্যে অবদান রাখায় ২০১৩-২০১৪, ২০১৪-২০১৫, ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের রপ্তানি ট্রফি, শিল্প মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন ন্যাশনাল প্রােডাকটিভিটি অর্গানাইজেশন (এনপিও) হতে ন্যাশনাল প্রােডাকটিভিটি অ্যান্ড কোয়ালিটি এক্সিলেন্স অ্যাওয়ার্ড ২০১৯ সহ বাংলাদেশ ব্র্যান্ড ফোরাম থেকে নয়বার দেশের শ্রেষ্ঠ প্লাস্টিকসামগ্রী ব্র্যান্ড হিসেবে পুরস্কার পায়।

আইএইচআর/এআরএ/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]