আস্থার সংকট কাটিয়ে উঠবে ই-কমার্স: শমী কায়সার

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০২:২৮ পিএম, ২৪ জানুয়ারি ২০২২

কিউকমের গ্রাহকের টাকা ফেরত দেওয়ার যে কার্যক্রম শুরু হয়েছে, তার মাধ্যমে ই-কমার্সের আস্থার সংকট কেটে যাবে বলে আশা করছেন ই-ক্যাবের (ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ) সভাপতি শমী কায়সার।

সোমবার (২৪ জানুয়ারি) দুপুরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে কিউকমের গ্রাহকদের অর্থ ফেরত দেওয়ার অনুষ্ঠানে তিনি এ আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এদিন ২০ গ্রাহককে ফস্টার পেমেন্টের মাধ্যমে অর্থ ফেরত দিয়ে কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়।

ছয় হাজার ৭২১ জন গ্রাহকের ক্রয়াদেশের বিপরীতে ৫৯ কোটি টাকা ফেরতের সম্মতি পাওয়াদের মধ্যে এই ২০ গ্রাহক অর্থ ফেরত পেলেন। তারা মোট ৪০ লাখ ২ হাজার ৪১৩ টাকা পেয়েছেন।

শমী কায়সার বলেন, আজকে আমাদের একটা গোল্ডেন মোমেন্ট (সোনালী মুহূর্ত)। যখন আমরা একটা সমস্যার সমাধান করি তখন একটি অনেস্ট উইং দরকার, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে সেটা রয়েছে। আমরা মনে করি ভুঁইফোড় কিংবা ডিজঅনেস্টিতে ব্যবসা করে খুব অল্প সংখ্যক (লোক বা প্রতিষ্ঠান)। বেশিরভাগ উদ্যোক্তা যারা মহামারিতে কাজ করেছেন, তারা সততা নিয়ে ডিজিটাল ব্যবসায় এসেছেন, এর মধ্যে বেশিরভাগ ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোক্তা রয়েছেন।

jagonews24অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছেন ই-ক্যাব সভাপতি শমী কায়সার/ছবি: জাগো নিউজ

যারা অন্যায় করেছেন, তাদের বিরুদ্ধে আইনি প্রক্রিয়া চলছে উল্লেখ করে ই-ক্যাব সভাপতি বলেন, যেখানে মানিলন্ডারিং হয়েছে সেখানেও কোনো ছাড় দেওয়া হচ্ছে না।

শমী কায়সার বলেন, ভোক্তাদের স্বার্থ সংরক্ষণের জন্য এই কাজটি গত কয়েক মাস ধরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় করেছে, ভোক্তারা যেন তাদের ন্যায্য অধিকারটা পান। তারা যেন তাদের অর্থ ফেরত পান সেজন্য যে কাজটি হয়েছে, সেটি একটি মহৎ উদ্যোগ। এর অংশ হিসেবে আজকে আজ যে যাত্রা শুরু হয়েছে, এটি একটি শুভযাত্রা। ই-কমার্স সেক্টরে যে আস্থার সংকট তৈরি হয়েছে, এটির মাধ্যমে তা কাটিয়ে ওঠা সম্ভব হবে, ই-কমার্সের আস্থা নতুন করে ফিরে পেতে সাহায্য করবে এই উদ্যোগ।

আইএইচআর/এইচএ/জিকেএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]