ভোজ্যতেল নিয়ে মামলা: সময় চাইলো আরও ৩ কোম্পানি

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৭:৩০ পিএম, ১৯ মে ২০২২
ফাইল ছবি

সেবা সীমিতকরণ বা নিয়ন্ত্রণের অভিযোগে দেশের ভোজ্যতেল আমদানিকারক ৮ কোম্পানির বিরুদ্ধে মামলা করেছিল সরকারি সংস্থা বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশন। বৃহস্পতিবার (১৯ মে) এ মামলার শুনানিতে চার কোম্পানির অংশ নেওয়ার সময় ছিল। কিন্ত ৩ কোম্পানির প্রতিনিধি অংশ নেন। এক কোম্পানি শুনানিতে অংশ নেয়নি।

পৃথকভাবে তিন কোম্পানির সঙ্গে কমিশনের শুনানি হয়। এ শুনানিতে প্রতিযোগিতা কমিশনের চেয়ারপারসন মো. মফিজুল ইসলামসহ অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

শুনানিতে অংশ নেওয়া কোম্পানিগুলোর কাছে সেবা সীমিতকরণ বা নিয়ন্ত্রণের বিষয়ে বিভিন্ন প্রশ্ন করা হয়। তবে কমিশনের প্রশ্নের জবাব দিতে কোম্পানিগুলো আরও সময় চায়। পরে কমিশন শুনানির জন্য নতুন দিন ধার্য করে।

নতুন ধার্য দিন অনুযায়ী, আগামী ২২ জুন শুনানির জবাব দিতে প্রতিযোগিতা কমিশনে আসবে গ্লোব এডিবল অয়েল লিমিটেড (রয়্যাল শেফ) ও এস আলম সুপার এডিবল অয়েল কোম্পানি লিমিটেড (এস আলম)। ২৭ জুন শুনানির জন্য সময় চেয়েছে শবনম ভেজিটেবল অয়েল ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড (পুষ্টি)। তবে দিন ধার্য থাকলেও শুনানিতে অংশ নেয়নি প্রাইম এডিবল অয়েল লিমিটেড (প্রাইম)।

এই প্রসঙ্গে বাংলাদেশ প্রতিযোগিতা কমিশনের একজন কর্মকর্তা জাগো নিউজকে বলেন, আমরা মোট ৮ কোম্পানির বিরুদ্ধে মামলা করেছিলাম। সেই ধারাবাহিকতায় বুধবার (১৮ মে) এ মামলার শুনানিতে চার কোম্পানির প্রতিনিধি অংশ নেয়। পৃথকভাবে চার কোম্পানির সঙ্গে কমিশনের শুনানি হয়।

দ্বিতীয় ধাপে বৃহস্পতিবার (১৯ মে) চার কোম্পানির শুনানির দিন ছিল। এর মধ্যে তিন কোম্পানি অংশ নিয়ে সময় চেয়েছে। এক কোম্পানি শুনানিতে অংশ নেয়নি। আমরা পুনরায় এখানে নোটিশ পাঠাবো যদি না আসে তবে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

এর আগে ভোজ্যতেলের ব্যবসায় কারসাজি ঠেকাতে প্রতিযোগিতা কমিশনের গঠিত অনুসন্ধান দল বাংলাদেশ এডিবল ওয়েল লিমিটেডসহ কয়েকটি ভোজ্যতেল কোম্পানির গুদাম ও শোধনাগারে অনুসন্ধান চালিয়েছিল। এরপর আমদানিকারক আট প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা করে প্রতিযোগিতা কমিশন। সেবা সীমিতকরণ বা নিয়ন্ত্রণের অভিযোগে স্বপ্রণোদিত হয়ে এ মামলা করে সংস্থাটি।

বুধবার (১৮ মে) শুনানিতে অংশ নিয়ে সময় চেয়েছিল বসুন্ধরা অয়েল রিফাইনারি মিল (বসুন্ধরা), মেঘনা গ্রুপের ইউনাইটেড এডিবল অয়েল রিফাইনারি লিমিটেড (ফ্রেশ), সিটি এডিবল অয়েল লিমিটেড (তীর) ও বাংলাদেশ এডিবল অয়েল লিমিটেড (রূপচাঁদা)।

এমওএস/এমএইচআর/এমএস

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]