রেস ম্যানেজমেন্টের ১১ মিউচুয়াল ফান্ডের নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৬:৫০ পিএম, ১৪ আগস্ট ২০২২

দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম মিউচুয়াল ফান্ড পরিচালনা করা রেস অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট পরিচালিত ১১টি মিউচুয়াল ফান্ডের ট্রাস্টি চলতি বছরের ৩১ জুন সমাপ্ত বছরের জন্য নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এর মধ্যে ১০টি মিউচুয়াল ফান্ড পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত।

এসব ফান্ড সর্বনিম্ন ৬ শতাংশ এবং সর্বোচ্চ ১১ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এতে ফান্ডগুলোর ইউনিটধারীরা সম্মিলিতভাবে ২০৭ কোটি ৩৩ লাখ টাকা পাবেন। এর মধ্যে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ১০ মিউচুয়াল ফান্ডের বিনিয়োগকারীরা পাবেন ২০২ কোটি ৩৮ লাখ টাকা।

রোববার (১৪ আগস্ট) রেস ম্যানেজেমেন্টের পরিচালিত ফান্ডগুলোর ট্রাস্টি এ লভ্যাংশ ঘোষণা করে। আগের হিসাব বছরেও ফান্ডগুলো বিনিয়োগকারীদের বড় লভ্যাংশ দেয়।

প্রতিটি মিউচুয়াল ফান্ডের ইউনিট মূল্য ১০ টাকা ধরে লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে। তবে বর্তমানে প্রতিটি মিউচুয়াল ফান্ডের দাম ১০ টাকার বেশ নিচে রয়েছে। ফলে ফান্ডগুলোর ইউনিটধারীরা প্রকৃত লভ্যাংশ (ডিভিডেন্ড ইল্ড) পাবেন ঘোষিত লভ্যাংশের থেকে বেশি হারে।

এ বছর রেস ম্যানেজমেন্ট পরিচালিত অতালিকাভূক্ত রেস স্পেশাল অপরচুনিটিজ ইউনিট ফান্ড সাড়ে ১৪ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করে। আর পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত রেস’র ১০ মিউচ্যুয়াল ফান্ডের মধ্যে এবার সব থেকে বেশি লভ্যাংশ দেবে ইবিএল এনআরবি। এ ফান্ডটি ১১ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। ফান্ডটির বর্তমান দাম ৭ টাকা ৪০ পয়সা। ফলে ডিভিডেন্ড ইল্ড হবে ১৪ দশমিক ৮৬ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি থেকে বিনিয়োগকারীরা ৬ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ পান।

এবার সব থেকে কম লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে ফার্স্ট বাংলাদেশ ফিক্সড ফান্ড। এ ফান্ডটি ৬ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৫ টাকা ২০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১১ দশমিক ৫৪ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি ৪ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

ফার্স্ট জনতা ব্যাংক
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৬ টাকা ৩০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১১ দশমিক ১১ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি ১৩ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

এবি ব্যাংক ফার্স্ট ইউনিট
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৫ টাকা ৪০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১২ দশমিক ৯৬ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি ৮ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

ইবিএল ফার্স্ট
মিউচুয়াল ফান্ডটি সাড়ে ৬ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৭ টাকা ৪০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ৮ দশমিক ৭৮ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি ১৩ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

এক্সিম ব্যাংক ফার্স্ট
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৬ টাকা ২০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১১ দশমিক ২৯ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি সাড়ে ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

আইএফআইসি ব্যাংক ফার্স্ট
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৫ টাকা ৪০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১২ দশমিক ৯৬ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি সাড়ে ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

পিএইচপি ফার্স্ট
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৫ টাকা ৪০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১২ দশমিক ৯৬ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি সাড়ে ৮ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

পপুলার লাইফ ফার্স্ট
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৫ টাকা ৪০ পয়সা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১২ দশমিক ৯৬ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি সাড়ে ৮ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

ট্রাস্ট ব্যাংক ফার্স্ট
মিউচুয়াল ফান্ডটি ৭ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেবে। বর্তমানে ফান্ডটির প্রতিটি ইউনিটের দাম ৬ টাকা। অর্থাৎ ডিভিডেন্ড ইল্ড ১১ দশমিক ৬৭ শতাংশ। গত বছর ফান্ডটি ৯ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল।

এমএএস/এমআইএইচএস/এএসএম

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।