শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় কঠোর মনিটরিংয়ের নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৮:৩১ পিএম, ১৯ জুন ২০১৯

প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় কোনো অনিয়ম সহ্য করা হবে না বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন। এ জন্য সংশ্লিষ্ঠ কর্মকর্তাদের কঠোর মনিটরিংয়ের নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

বুধবার (১৯ জুন) প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরে অনুষ্ঠিত রাজস্ব খাতভুক্ত প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা সংক্রান্ত সমন্বয় সভায় তিনি এ কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী জানান, সরকার প্রশ্ন ফাঁসের বিষয়ে ‘জিরো টলারেন্স’ নীতি গ্রহণ করেছে। গত দুই ধাপের পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগের বিষয়ে তদন্ত চলছে। সত্যতা পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসন, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের যে সব কর্মকর্তা-কর্মচারী পরীক্ষা সংশ্লিষ্ট দায়িত্ব পালন করবেন, তাদের সকলকে গুরুত্ব দিয়ে পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে হবে। পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও গোয়েন্দা সংস্থাগুলোও সতর্ক অবস্থানে রয়েছে বলেও জানান তিনি। যে কোনো উদ্ভূত পরিস্থিতিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সরাসরি সহযোগিতা নেয়ার আহ্বান জানান প্রতিমন্ত্রী।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় ও প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর হতে জেলাভিত্তিক মনিটরিং টিম প্রেরণের পাশাপাশি এবার মন্ত্রণালয় এবং এর অধীন দফতরসমূহের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা বিভাগীয় শহরের পরীক্ষা কার্যক্রম পরিদর্শন করবেন।

উল্লেখ্য, গত ২৪ ও ৩১ মে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ ২০১৮-এর প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। চার ধাপে এ পরীক্ষায় তৃতীয় ধাপের পরীক্ষা ২১ জুন এবং চতুর্থ ধাপের পরীক্ষা ২৮ জুন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। সারাদেশে এবারের পরীক্ষায় ২৪ লাখের বেশি প্রার্থী অংশ নিচ্ছেন।

এমএইচএম/এএইচ/এমএস

আপনার মতামত লিখুন :