কোচিং সেন্টারের বিষয়ে নতুন সিদ্ধান্তের ইঙ্গিত শিক্ষামন্ত্রীর

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:০৯ পিএম, ১৬ জানুয়ারি ২০২০

আগামী বছর কোচিং সেন্টারের বিষয়ে নতুন সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। এ বিষয়ে স্থায়ী একটি সমাধানের মাধ্যমে বর্তমান সিদ্ধান্তের পরিবর্তন আসতে পারে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি।

বৃহস্পতিবার (১৬ জানুয়ারি) শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার নিরাপত্তা-সংক্রান্ত আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা শেষে এ কথা বলেন তিনি।

কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকায় অনেক শিক্ষার্থীর ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার অভিযোগ রয়েছে এমন প্রশ্নে দীপু মনি বলেন, পরীক্ষার আগে কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখা কোনো স্থায়ী সমাধান নয়। কিন্তু পরীক্ষার আগে প্রশ্নফাঁস, জালিয়াতি ও অনিয়মে কোচিং সেন্টারের কিছু অসাধু ব্যক্তির জড়িত থাকার প্রমাণ মিলেছে। এ কারণে বাধ্য হয়ে পাবলিক পরীক্ষার আগে কোচিং বন্ধের নির্দেশ দেয়া হচ্ছে।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ক্লাসে শিক্ষকরা মনোযোগ সহকারে পড়ান না বলেই শিক্ষার্থীরা কোচিংয়ে যেতে বাধ্য হচ্ছে। এ কারণে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান অনলাইনের আওতায় আনা হবে। এর মাধ্যমে শিক্ষকদের পাঠদান কার্যক্রম মনিটরিং করা হবে। এতে শিক্ষকদের জবাবদিহিতা বাড়বে এবং পাঠদানের প্রতি মনোযোগী হয়ে উঠবেন। এ লক্ষ্যে শিক্ষা নীতিমালায় বিষয়গুলো নতুনভাবে অন্তর্ভুক্ত করা হচ্ছে। দীর্ঘদিন আটকে থাকা শিক্ষা আইন বাস্তবায়নের কাজ শুরু হয়েছে।

মন্ত্রী বলেন, শিক্ষার্থীদের পাঠদানে আনন্দপূর্ণ করে তুলতে কারিকুলামে আমূল পরিবর্তন আনা হচ্ছে। মূল্যায়ন পদ্ধতিতে পরিবর্তন আনা হচ্ছে, বিষয় ও পরীক্ষা কমানো হচ্ছে।

এমএইচএম/এএইচ/পিআর

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]