আলাদা গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা নিতে চায় বুয়েট

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:৫৫ পিএম, ০২ ডিসেম্বর ২০২০

শর্তসাপেক্ষে দেশের তিন প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় চুয়েট, কুয়েট ও রুয়েটকে নিয়ে আলাদা গুচ্ছ পদ্ধতির ভর্তি পরীক্ষায় যেতে চায় বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট)। বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের সভায় এ ধরনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে অন্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলো সঙ্গে আলোচনার পর সম্মতি পেলে অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের পরবর্তী সভায় ভর্তি পরীক্ষা নিয়ে বুয়েট কর্তৃপক্ষ চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে বুয়েটের রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ড. মো. ফোরকান উদ্দিন বুধবার (০২ ডিসেম্বর) জাগো নিউজকে বলেন, ‘ভর্তি পরীক্ষা নিয়ে অ্যাকাডেমিক কাউন্সিল একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তবে এটি চূড়ান্ত নয়। যেহেতু এবার এইচএসসি পরীক্ষা হবে না, সেক্ষেত্রে অন্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর সঙ্গে একটি এমসিকিউ হতে পারে। পরে বুয়েটে লিখিত আরেকটি পরীক্ষা নেয়ার বিষয়ে অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলে সিদ্ধান্ত হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘এ সংক্রান্ত সব সিদ্ধান্ত অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলে হবে। এই সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত নয়। অন্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলো কী ভাবছে তার ওপর সব নির্ভর করছে। বুয়েটে কীভাবে ভর্তি পরীক্ষা হবে তা অ্যাকাডেমিক কাউন্সিলের পরবর্তী সভায় হয়তো সিদ্ধান্ত হতে পারে।’

জানা গেছে, প্রস্তাবিত চার প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের এভাবে গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা হলেও সেখানে নেতৃত্বে থাকতে চায় বুয়েট। এ ভর্তি পরীক্ষার সিংহভাগ হতে হবে বুয়েট ক্যাম্পাসে। এ সিদ্ধান্তে অন্য বিশ্ববিদ্যালয় রাজি না হলে আলাদাভাবে ভর্তি পরীক্ষা নেবে বুয়েট কর্তৃপক্ষ। এ ধরনের প্রস্তাবনা বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনে (ইউজিসি) পাঠানো হচ্ছে বলেও জানা গেছে।

বুয়েটের প্রস্তাবনা অনুযায়ী, এবার ভর্তিচ্ছু বেশি সংখ্যক শিক্ষার্থীকে আবেদনের সুযোগ দেয়া হবে। আবেদনকারীদের নিয়ে চার বিশ্ববিদ্যালয়ে এমসিকিউ পরীক্ষা হবে। এতে উত্তীর্ণরা বুয়েট ক্যাম্পাসে লিখিত পরীক্ষায় অংশ নেবেন।

এর আগে মঙ্গলবার ইউজিসির এক বৈঠকে ১৯ বিশ্ববিদ্যালয় মিলে গুচ্ছ পদ্ধতিতে যাওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়। ১৯টি বিশ্ববিদ্যালয় হলো- ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, মওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, কুমিল্লা বিশ্বদ্যিালয়, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়, যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বেগম রোকেয়া বিশ্বদ্যিালয়, পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়, রাঙ্গামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল ইউনিভার্সিটি, শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয় এবং বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়।

এমএইচএম/এসএস/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]