কানাডার কলেজে ভর্তিতে ভার্চুয়াল মেলা

জাগো নিউজ ডেস্ক
জাগো নিউজ ডেস্ক জাগো নিউজ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৮:০৬ পিএম, ২১ ডিসেম্বর ২০২০

বাংলাদেশ থেকে কানাডায় অনেকেই পড়তে যেতে আগ্রহী। উচ্চমাধ্যমিক পাস করার সঙ্গে সঙ্গেই অনেক শিক্ষার্থী কানাডার বিভিন্ন কলেজে আবেদন করে থাকেন।

তবে স্কলারশিপ, কানাডার ভিসা, ল্যাঙ্গুয়েজ কোর্স, ভর্তি গাইডলাইন, সেমিস্টার ফি, আনুষঙ্গিক খরচ, থাকা-খাওয়া, পার্টটাইম কাজের সুযোগ ইত্যাদি সম্পর্কে খুব বেশি জানেন না।

কানাডায় পড়তে যেতে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের জন্য এসব বিষয়ে নিয়ে ‘কানাডা কলেজ অ্যাডমিশন এক্সপো-২০২০’ আয়োজন করেছে ‘অস্প্রে এডুকেশন কানাডা ইঙ্ক’ নামের একটি প্রতিষ্ঠান।

গত ২০ ডিসেম্বর শুরু হয়েছে এ ইভেন্ট। চলবে ২১ ও ২২ ডিসেম্বর রাত ৮টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত। এই আয়োজনে যুক্ত থাকছে কানাডার নামকরা ১০টি কলেজ।

যেসব কলেজ এই ভার্চুয়াল মেলায় থাকছে
১. স্যার স্যান্ডফোর্ড ফ্লেমিং কলেজ
২. বেটা কলেজ অব বিজনেস অ্যান্ড টেকনোলজি
৩. দি ইউনিভার্সিটি অব উইনিপিক, কলেজিয়েট
৪. লয়ালিস্ট কলেজ
৫. নর্থ আইল্যান্ড কলেজ
৬. ট্যামউড ইন্টারন্যাশনাল কলেজ 
৭. সাসকাটচেয়ান পলিটেকনিক
৮. ম্যানিটোবা ইনস্টিটিউট অব ট্রেডস অ্যান্ড টেকনোলজি
৯. ল্যাঙ্গারা কলেজ 
১০. সেনেকা কলেজ।

আগ্রহী শিক্ষার্থীরা এসব কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধির সঙ্গে লাইভ প্রশ্ন বিনিময়ের মাধ্যমে অ্যাসেসমেন্ট করে নিতে পারবেন। যুক্ত হতে পারবেন এই লিঙ্ক থেকে। 

jagonews24

খরচের হিসাব

কানাডার কলেজগুলোতে বিষয়ভেদে প্রতি সেমিস্টার কোর্স ফি প্রায় আট থেকে ১০ হাজার ডলার। বইকেনা বাবদ আনুষঙ্গিক আরও হাজারখানেক ডলার এককালীন ধরে রাখতে হয়। ল্যাঙ্গুয়েজ কোর্স করলেও সেক্ষেত্রে প্রতি সেমিস্টারে ওই পরিমাণ দিতে হবে।

কোনো শিক্ষার্থী দুই বছরের কোর্সে ভর্তি হলে তাকে সাধারণভাবে মোট চারটা সেমিস্টারের জন্য আনুমানিক ৪০ হাজার ডলার টিউশন ফি কলেজকে পরিশোধ করতে হবে। থাকা-খাওয়া বাবদ মাসে ন্যূনতম প্রায় এক হাজার ডলার খরচ হবে।

কাজের সুযোগ

কানাডায় একজন শিক্ষার্থী ওয়ার্ক পারমিট থাকলে সপ্তাহে ২০ ঘণ্টা করে কাজ করতে পারবেন। বড় শহর যেমন টরোন্টোতে কাজের সুযোগ বেশি। ইংরেজি ভাষা কোর্স চলাকালীন ওয়ার্ক পারমিট পাওয়া সম্ভব নয়। তবে কোর্স শেষ করে মূল কোর্সে যেতে পারলে সপ্তাহে ২০ ঘণ্টা কাজ করার অনুমতি বা পাওয়া সম্ভব।

বিএ

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]