৪১তম বিসিএস : পরীক্ষা কেন্দ্রে যেসব জিনিস আনা নিষেধ

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৩:৩৮ পিএম, ০৭ মার্চ ২০২১
ফাইল ছবি

আগামী ১৯ মার্চ ৪১তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা (এমসিকিউ) নেয়ার ঘোষণা দিয়েছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। দেশের ৮টি বিভাগীয় শহরে এ পরীক্ষায় হাতঘড়ি, অলঙ্কার ও কোনো ধরনের ডিভাইস নিয়ে পরীক্ষার কেন্দ্রে প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

রোববার (৭ মার্চ) পিএসসি পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (ক্যাডার) নূর আহমেদ স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে পিএসসি জানিয়েছে, বিসিএস পরীক্ষার সময় সব ধরনের হাতঘড়ি, মোবাইল ফোন, ক্যালকুলেটর ব্যবহার করা যাবে না। সময় জানার জন্য পরীক্ষার কক্ষে প্রয়োজনীয় সংখ্যক দেয়াল ঘড়ির ব্যবস্থা থাকবে। পরীক্ষার হলে প্রার্থীরা কানে কোনো আবরণ রাখতে পারবেন না, কান খোলা রাখতে হবে। অলঙ্কারজাতীয় কিছু ব্যবহার করতে পারবেন না। সঙ্গে ক্রেডিট কার্ড বা ব্যাংক কার্ডসদৃশ কোনো কিছু বহন করা যাবে না।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, মোবাইল ফোন, হাতঘড়ি, পকেটঘড়ি, ইলেকট্রনিক ডিভাইস, বই-পুস্তক, ক্যালকুলেটর, ব্যাগ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এসব সামগ্রী পাওয়া গেলে তা বাজেয়াপ্তসহ বিসিএস পরীক্ষা বিধিমালার বিধি ভঙ্গের কারণে সংশ্লিষ্ট প্রার্থীর পরীক্ষা বাতিলসহ ভবিষ্যতে কমিশন গৃহীত সব নিয়োগ পরীক্ষার জন্য তাকে অযোগ্য ঘোষণা করা হবে।

এতে বলা হয়, কানে কোনো ধরনের হিয়ারিং ব্যবহারের প্রয়োজন হলে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শসহ আগে পিএসসিকে অবহিত করতে হবে। পরীক্ষা কেন্দ্রে কী কী আনা যাবে আর কী কী আনা যাবে না তা পরীক্ষার্থীদের একদিন আগে এসএমএস করে জানিয়ে দেয়া হবে।

৪১তম সাধারণ বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা ঢাকা, চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, সিলেট, রংপুর ও ময়মনসিংহ কেন্দ্রে একযোগে নেয়া হবে। পরীক্ষায় আবেদনকারীর সংখ্যা চার লাখ ৭৫ হাজার। স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা নেয়ার জন্য নতুন কয়েকটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে পিএসসি।

পিএসসি চেয়ারম্যান মো. সোহরাব হোসাইন বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে আগামী ১৯ মার্চ ৪১তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রতি বেঞ্চে একজন করে বসবেন। আসন বিন্যাস হবে ইংরেজি জেড ‘Z’ আকৃতির। পরীক্ষা আয়োজনে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সহযোগিতা চেয়ে আবেদন করলে তারা সম্মতি দিয়েছে।

২০১৯ সালের ২৭ নভেম্বর ৪১তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে পিএসসি। এতে বিভিন্ন পদে ২ হাজার ১৩৫ কর্মকর্তা নিয়োগ দেয়া হবে বলে জানানো হয়। বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী সবচেয়ে বেশি নিয়োগ দেয়া হবে শিক্ষা ক্যাডারে। এ ক্যাডারে ৯১৫ জনকে নিয়োগ দেয়া হবে। এর মধ্যে বিসিএস শিক্ষায় প্রভাষক ৯০৫ জন ও কারিগরি শিক্ষা বিভাগে প্রভাষক ১০ জন নেয়া হবে।

এমএইচএম/এমএসএইচ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]