জন্মদিনে ভক্তের উপহার দেখে আবেগাপ্লুত সনু সুদ

বিনোদন ডেস্ক
বিনোদন ডেস্ক বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৩৭ পিএম, ৩১ জুলাই ২০২১

সিনেমার বড় পর্দার তারকাদের ভালোবেসে ভক্তরা কতো কিছুই না করেন। কেউ মাইলের পর মাইল পাড়ি দেন পছন্দের তারকাকে একনজর দেখার জন্য। কেউবা আবার নিজের শরীরে আঁকেন প্রিয় তারকার প্রিয় মুখ।

ভক্তদের এমন পাগলামি বিনোদন জগতে নতুন কিছু নয়। তাদের এই পাগলামি যে শুধুই তারকাদের প্রতি ভালোবাসা ও শ্রদ্ধার তার প্রমাণ মিললো বলিউড অভিনেতা সনু সুদের জন্মদিনে।

গত শুক্রবার ৩০ জুলাই বলিউডের এই মাসিহার ৪৮তম জন্মদিন ছিল। বরাবরই সনু তার জন্মের দিনটি পালন করতে অনাগ্রহী। কিন্তু তিনি চাইলেই কি আর না চাইলেই কি। ভক্তদের কাছে যিনি ভগবান তার জন্মদিন তো ভক্তরাই ঘটা করে পালন করবে এটাই স্বাভাবিক।

তাই তো করোনাভাইরাসের বাধা উপেক্ষা করে, জন্মদিনের দিন সকাল থেকেই সনুর বাড়ির সামনে ভক্তরা উপস্থিত হতে থাকে এবং সবাই তাদের দেবতা সমতুল্য অভিনেতাকে একের পর এক সারপ্রাইজ করতে থাকে। সবার উপহার ছাপিয়ে এক অনুরাগীর অভিনব উপহার নজর কাড়ে সবার।

এদিন তামিলনাড়ুর এক ভক্ত সনুর জন্মদিন উপলক্ষে একবারে খালি হাতে তার বাড়ির সামনে উপস্থিত হয়। সবাই যখন প্রিয় অভিনেতার জন্য আনা উপহার দেখাতে ব্যস্ত। ঠিক সে সময় তিনি ভিড়ের মধ্যেই মুখের মাস্ক খুলে জিভ ডুবিয়ে দিলেন বাটি ভর্তি হলুদ রঙে। এরপর সাদা একটি কাগজে নিজের জিভ দিয়েই একে ফেলেন ভালোবাসার মানুষটির মুখ, যা দেখে উপস্থিত সবাই অবাক হয়ে যান। ভক্তের এমন ভালোবাসা দেখে উপস্থিত দর্শকদের সাথে সনু নিজেও অবাক হয়ে যান। হয়ে পড়েন আবেগাপ্লুত।

এর পর হাততালি দিয়ে অভিবাদন জানান ভক্ত শিল্পীকে। হাত ব্যবহার না করে শুধু মাত্র জিভের সাহায্যে এভাবে ছবি আঁকতে দেখে মুগ্ধ সেখানে উপস্থিত অভিনেতার অনুরাগীরা।

এ উপহার পাওয়ার পর সবার সঙ্গে জন্মদিনের কেক কাটেন বলিউডের এ খলনায়ক। এরপর ছবিও তোলেন অনুরাগীদের সঙ্গে।

প্রসঙ্গত, করোনার সময় সনু সুদ ভারতের অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়ে মাসিহা উপাধি পান। সবাই তাকে তার এমন কর্মকাণ্ডের জন্য ভগবানের সাথেও তুলনা করেন। সনু সবসময়ই মানুষের জন্য কিছু করতে পাড়াকে নিজের জন্য সৌভাগ্য মনে করেন। তিনি মনে করেন মানুষের জন্য কিছু করতে পারা ঈশ্বরের আশীর্বাদ।

এলএ/এএসএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]