অ্যাঞ্জেলিনা জোলিকে ‘প্রতিভাহীন কাঁচা অভিনেত্রী’ বললেন প্রযোজক

বিনোদন ডেস্ক
বিনোদন ডেস্ক বিনোদন ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:২৫ পিএম, ০৮ এপ্রিল ২০২১

তারকাদের নিয়ে সমালোচনা নতুন কিছু নয়। হলিউড কিংবা বলিউড সকল ক্ষেত্রেই তারকাদের অভিনয় কিংবা ব্যক্তি জীবনের নানা দিক নিয়েই সমালোচনা হতে দেখা যায়।

আর এমন তারকাদের অন্যতম একটি নাম অ্যাঞ্জেলিনা জোলি। দুই দশকেরও বেশি দীর্ঘ সময়ের ক্যারিয়ারে একাডেমি পুরস্কার এবং তিনটি গোল্ডেন গ্লোবসহ অসংখ্য সম্মানে সম্মানিত হয়েছেন এই অভিনেত্রী।

শুধুমাত্র হলিউডের সব থেকে বেশি পারিশ্রমিক প্রাপ্ত অভিনেত্রীদের তালিকায় উপরের স্থানে থাকা নয়, শরণার্থীদের জন্য জাতিসংঘের হাই কমিশনারের বিশেষ দূত হিসেবেও কাজ করে নিজেকে অনন্য করে তুলেছেন তিনি। কিন্তু এই আঞ্জেলিনা জোলিকেও হলিউডের শীর্ষস্থানীয় প্রযোজক স্কট রুডিন দ্বারা প্রতিভাহীন অপরিপক্ক অভিনেত্রীর ট্যাগ পেতে হয়েছে।

২০১৪ সালে হলিউডের দুই শীর্ষস্থানীয় ব্যক্তি স্কট রুডিন এবং সনি পিকচার্সের সহ-চেয়ারম্যান অ্যামি পাস্কালের মধ্যকার এক ইমেইল সিরিজ ফাঁস হয়। সেই মেইলে দেখা যায় রুডিন এবং পাস্কালের মাঝে নতুন একটি সিনেমা নির্মাণ নিয়ে কথা হচ্ছিল। প্রসঙ্গক্রমে জোলির কথা আসলে, সেখানে জোলিকে প্রতিভাহীন একজন কাঁচা অভিনেত্রী হিসেবে আখ্যায়িত করেন রুডিন।

অন্য আরও একটি মেইলে দেখা যায় স্কট রুডিন আঞ্জেলিনা জোলিকে আক্রমণ করে তার সিনেমা নিয়েও নানা সমালোচনা করেন। তবে জোলি এবং স্কটের এই বিপরিতমুখী সম্পর্ক নতুন কিছু নয়। এর আগেও জোলিকে নিয়ে নানা বিরুপ মন্তব্য করেছেন তিনি।

প্রসঙ্গত, ১৯৮২ সালে 'লুকিন টু গেট আউট' চলচ্চিত্রে বাবা জন ভইটের সাথে একটি শিশু চরিত্রে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্র জগতে জোলির আবির্ভাব হয়। তবে পেশাদার চলচ্চিত্র অভিনেত্রী হিসেবে তার অভিষেক ঘটে স্বল্প বাজেটের ছবি 'সাইবর্গ ২'-এ অভিনয়ের মাধ্যমে।

এলএ/জেআইএম

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]